ফরিদুল আলম দেওয়ান, মহেশখালী:
মহেশখালীর হোয়ানক কালাগাজীর পাড়া বাজারের জন্য নির্দিষ্ট সরকারি খাস জায়গা অবৈব ভাবে দখল করে রাখায় হাটে পণ্য নিয়ে বেচাকেনা করতে আসা লোকজন বসতে না পারায় ক্রেতা-বিক্রেতারা প্রধান সড়ক দখল করে  রাস্তা ও ব্রীজের উপর তরকারির কাঁচা বাজার বসানোর ফলে যানবাহণ চলাচল ও পথচারীদের চলাচল মারাত্মক ব্যাঘাত ঘটছে। রাস্তার উপর বাজার বাসায় যানবাহন চলাচলে প্রতিদিন ঘটছে দূর্ঘটনা। সাম্প্রতিক সময়ে রাস্তা দখল করা বাজারের ওই স্থানে একাধিক সড়ক দূর্ঘটনায় অন্তত ৬ জন লোক আহত হয়েছে। বারবার একই স্থানে দূর্ঘটনার পর বিক্ষুব্দ জনতা তাৎক্ষনিক ভাবে বাজার সংলগ্ন ব্রীজের দু’পাশ দখল করে বসানো তরকারির বাজার ভেঙ্গে উচ্ছেদ করে দিলেও বাজারের সরকারি খাস জায়গা স্থানীয় প্রভাবশালীরা দখল করে দোকান ও বাড়ী নির্মাণ করায় দূর্ভোগে পড়েছে ভাসমান মাছ তরকারি বিক্রেতাসহ কাঁচা পণ্য ব্যবসায়িরা।
জানা যায়, উপজেলার প্রধান সড়ক সংলগ্ন সরকারিভাবে নিলামে ইজারা দেওয়া হোয়ানকের কালাগাজীর  পাড়া বাজারে স্থাপিত ব্রীজের দুপাশে বাজারের মাছ তরকারি ব্যবসায়িরা সড়ক দখল করে দোকান বসানোর কারণে প্রতি দিন যানবাহন চলাচলে মারাত্নক বিঘ্ন ঘটে আসছিল। বাজার পরিচালনা কমিটি ও স্থানীয় জনগণ এর প্রতিবাদ করলেও কে শোনে কার কথা। ফলে নিত্যদিন ঘটছে দূর্ঘটনা।
     ব্রীজের পাশ দখল করে বাজার বসানোর ব্যাপারে কালাগাজীর পাড়া বাজার ব্যবসায়ি সমিতির সভাপতি হামিদুল ইসলাম বলেন, বাজারের নির্ধারিত সরকারি খাসের ৮ শতক জায়গা স্থানীয় প্রভাবশালী হাজী ছৈয়দ কবির সওদাগর জবর দখল করে তাতে দোকান ও বাড়ী নির্মাণ করায় বাজার ইজারাদার রাস্তা ও ব্রীজ দখল করে তরকারির বাজার বসানোর কারণে যানবাহণ চলাচল করতে না পারায় প্রতিদিন ঘটছে দূর্ঘটনা। বাজার কমিটির সভাপতির ও ব্যবসায়িরা অভিযোগ করে বলেন, তারা ইতিপূর্বে উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তার বরাবরে বাজারের খাস জায়গাটি উদ্ধার করে তাতে ফেরী ব্যবসায়িদের বসানোর জায়গা করে দেয়ার জন্য লিখিত অভিযোগ দিয়েছিলেন। কালাগাজির পাড়া বাজারের ইজারাদার কালা মিয়া জানান, বাজারের নির্দিষ্ট খাস জায়গাটি জবরদখল করে রাখায় কাঁচা বাজার ও ফেরি ব্যবসায়ীরা বসার জায়গা না থাকার কারণে তারা রাস্তার ধারে মালামাল বিক্রি করতে বসে পড়ছে। ফলে যান চলাচলে ব্যাঘাত ঘটছে।
     উক্ত ব্যাপারে সহকারি কমিশনার (ভুমি), কানুনগো ও তহশিলদার সরজমিনে এসে একাধিক বার পরিমাপ করে সরকারি খাস জায়গাটি চিহ্নিত করলেও রহস্যজনক কারণে তা আর উদ্ধার করা হয়নি। তিনি বাজারের ফেরি ব্যবসায়িরা বসার জন্য সরকারি খাস জায়গাটি উদ্ধার করতে প্রশাসনের প্রতি দাবী জানান।
  •  
  •  
  •  
  •  
  •   
  •  
  •