শাহিদ মোস্তফা শাহিদ:
ঢাকা বাড্ডা এলাকার একটি আবাসিক হোটেল থেকে ১৫০০ ইয়াবাসহ আটক হলো কক্সবাজার সদরের ইসলামপুর ইউনিয়ন শ্রমিক লীগের সাধারণ সম্পাদক মুবিনুল ইসলাম শুভ।
বৃহস্পতিবার (১২ নভেম্বর) দিবাগত রাত ৯ টার দিকে ঢাকা হোটেলে অভযান চালিয়ে তাকে আটক করেছে গোয়েন্দা (ডিবি) পুলিশের একটি টিম।
এ ঘটনায় শুভকে প্রধান আসামি করে আরো ৪/৫ জনের নামে মামলা হয়েছে। যার মামলা নং ৩৫/৬৭০, তাং ১২-২০২০ ইং। ধারা মাদক দ্রব্য নিয়ন্ত্রণ আইন ১৮ এর ৩৬(১)এর ১০(ক)৪১/।
আটককৃত শ্রমিকলীগ নেতা ইসলামপুর ইউনিয়নের উত্তর নাপিত খালী বটতলা গ্রামের ছিদ্দিক আহমদের ছেলে।
বাড্ডা থানার ডিউট অফিসার সূত্রে জানা যায়, বৃহস্পতিবার রাত ৯ টার দিকে ঢাকা হোটেলে গোপন সংবাদের ভিত্তিতে অভিযান চালায় ডিবি পুলিশ। এ সময় ডিবির উপস্থিতি টের পেয়ে আরো ৪/৫ জন ব্যক্তি পালিয়ে যায়। সে সময় রুমে অবস্থানরত মুবিনুল ইসলাম শুভকে ধৃত করে। পরে তার দেহ তল্লাশী করে প্যান্টের পকেটে থাকা ১৫শ পিস ঘাতক মরণ নেশা ইয়াবা উদ্ধার করে।
এদিকে তার আটকের সংবাদ এলাকায় চাউর হলে ব্যাপক চাঞ্চল্যের সৃষ্টি হয়।
স্থানীয়রা বলছে তার গডফাদার কে? কার কাছে নিয়েছিল ইয়াবাগুলো? কার থেকে সংগ্রহ করছে? এসব বিষয় গুলো তদন্তপূর্বক বের করা প্রয়োজন। সে দীর্ঘদিন ধরে শ্রমিকলীগের আড়ালে মোটর সাইকেল চুরিসহ হরেকরকম অপরাধ করে আসছে। তার মতো আরো কয়েকজন রয়েছে, যারা এলাকায় গাছ চুরি, মোটর সাইকেল চুরি, বন নিধন করে দখল বাণিজ্য, কন্টাকে পরের জমি দখলসহ নানা অপরাধকর্ম করছে দেদারছে।
কয়েকমাস আগে কক্সবাজার শহরের এক শিক্ষার্থীকে জোর করে অপহরণ করে আপন সহোদরকে বিয়ে করিয়ে দেওয়ার চেষ্টা করে ইসলামপুর শ্রমিক লীগের সাধারণ সম্পাদক মুবিনুল ইসলাম শুভ। পরে ভিকটিমের বাবা বাদী হয়ে কক্সবাজার সদর মডেল থানায় মামলা দায়ের করলে ঈদগাঁও তদন্ত কেন্দ্রের প্রাক্তন এসআই আবু বক্কর ছিদ্দিক অভিযান চালিয়ে মুবিনকে আটক করে আদালতের মাধ্যমে জেলে পাঠিয়েছিল। কয়েকমাস জেলে ছিল। জামিনে বেরিয়ে মাদক ব্যবসায় জড়িয়ে পড়ে।
এদিকে তার বিরুদ্ধে অভিযোগ প্রমাণিত হলে সাংগঠনিকভাবে ব্যবস্থা নিবেন বলে জানিয়েছেন ঈদগাঁও সাংগঠনিক উপজেলা জাতীয় শ্রমিক লীগের সাধারণ সম্পাদক সাইফুল ইসলাম।

  •  
  •  
  •  
  •  
  •   
  •  
  •