কুতুবদিয়া প্রতিনিধি :

কক্সবাজারের কুতুবদিয়া উপজেলা বিএনপির উদ্যোগে জাতীয় বিপ্লব ও সংহতি দিবস পালন করা হয়েছে। রবিবার বিকালে উপজেলা বিএনপির অস্থায়ী কার্যালয়ে এ উপলক্ষে আলোচনা সভা অনুষ্ঠিত হয়েছে।

কুতুবদিয়া উপজেলা বিএনপির সভাপতি ও কৈয়ারবিল ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান জালাল আহমদ এর সভাপতিত্বে আলোচনা সভায় প্রধান অতিথি অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন কক্সবাজার জেলা বিএনপির সি:সহ-সভাপতি ও কুতুবদিয়া উপজেলা পরিষদের সাবেক চেয়ারম্যান এটিএম নুরুল বশর চৌধুরী।

কুতুবদিয়া উপজেলা বিএনপির সাধারণ সম্পাদক এমএ সালাম কুতুবীর সঞ্চালনায় উক্ত আলোচনা সভায় আরো উপস্থিত ছিলেন উপজেলা বিএনপি’র সি:সহ-সভাপতি ও দক্ষিণ ধূরুং ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান ছৈয়দ আহমদ চৌধুরী,উপজেলা বিএনপির সহ-সভাপতি ও লেমশীখালী ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান আকতার হোছাইন, সাবেক চেয়ারম্যান ফিরোজ খান চৌধুরী,আবুল কালাম আযাদ,যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক কামরুল হাসান,সাংগঠনিক সম্পাদক কামরুল হাসান সিকদার,রেজাউল করিম রাজু,নেজাম উদ্দিন নাজু (এমইউপি),সহ-সাংগঠনিক এ কাইয়ুম শহিদুল আযাদ, প্রচার সম্পাদক মোঃ ইলিয়াছ, মৎস্যজীবী সম্পাদক হাজী আবুল বশর, কৃষি সম্পাদক ফিরোজ খান,প্রবাসী সম্পাদক আরিফ উল্লাহ বাদশা,তথ্য ও গবেষনা সম্পাদক কপিল উদ্দিন (এমইউপি),ক্ষুদ্র ও সমবায় সম্পাদক জাহাঙ্গীর আলম সিকদার,সেচ্ছাসেবক সম্পাদক রেজাউল করিম, প্রশিক্ষণ সম্পাদক হামিদুর রহমান,সদস্য গিয়াস উদ্দিন, শামশুল আলম, উপজেলা যুবদলের সাবেক যুগ্ম আহবায়ক হুমায়ন কবির,জাহেদ খান সিকদার, উপজেলা সেচ্ছাসেবক দলের সাধারণ স¤পাদক ইউছুফ নবী, দক্ষিণ ধুরুং ইউনিয়ন যুবদলে সভাপতি মোজাম্মেল হক,সাধারণ সম্পাদক এহাছান কুতুবী, আলী আকবর ডেইল ইউনিয়ন যুবদলের সাধারণ সম্পাদক নুরুল আলম,উত্তর ধুরুং ইউনিয়ন যুবদলের সাধারণ সম্পাদক মো:এখলাছ,লেমশীখালী ইউনিয়ন যুবদলের সাধারণ সম্পাদক দিলদার হোছাইন,যুবনেতা বখতিয়ার উদ্দিন শিবু,কৃষকদল নেতা আকতার আহমদ,উপজেলা ছাত্রদলের সাধারণ সম্পাদক কাউছার হোছাইন রিপন,সি:যুগ্ম সম্পাদক আহসানুল হক রুবেল,যুগ্ম সম্পাদক মোকারম কুতুবী,সাংগঠনিক সম্পাদক সাইফুদ্দিন ছিদ্দিকী মানিক, উপজেলা ছাত্রদল নেতা রেজাউল করিম, আবুল কাশেম,মো: ফারভেজ আলম মো: ফারুক ,আব্দুল মান্নান,হামিদুল হক সোহেল,কায়কোবাদ সিকদার,জিয়াউল হক,মোঃ মোরশেদ,,মোস্তাকিম, নাজমুল হুদা সাকিব,তারেক জিয়া,আব্দুল মোমেন, ইয়াছিন হায়দার,রফিকুল ইসলাম প্রমূক।

এ সময় এটিএম নুরুল বশর চৌধুরী বলেন, ৭ নভেম্বর জাতীয় জীবনের এক ঐতিহাসিক অবিস্মরণীয় দিন। ১৯৭৫ সালের এ দিনে সৈনিক-জনতা রাজপথে নেমে এসেছিল জাতীয় স্বাধীনতা সুরক্ষা ও হারানো গণতন্ত্র পুনরুজ্জীবনের দৃঢ় প্রত্যয় বুকে নিয়ে। তাই ৭ নভেম্বরের ঐতিহাসিক বিপ্লব অত্যান্ত তাৎপর্য। দেশমাতৃকার চরম সংকট কালে ১৯৭৫ এর ৩ নভেম্বর কুচক্রিরা জিয়াউর রহমানকে সপরিবারে ক্যান্টনমেন্টে বন্দি করে। এ অরাজক পরিস্থিতিতে ৭ নভেম্বর দেশ প্রেমিক সৈনিক এবং জনতার ঢলে রাজপথে এক অনন্য সংহতির স্ফুরণ ঘটে এবং জিয়াউর রহমান মুক্ত হন।

  •  
  •  
  •  
  •  
  •   
  •  
  •