আতিকুর রহমান মানিক
আসন্ন শীত মৌসুম উপলক্ষে কেনাকাটায় ভোক্তাদের স্বার্থ সংরক্ষণে কক্সবাজার শহরের শীতবস্ত্র বিপনী ও লেপ তোষক প্রস্ততকারী প্রতিষ্ঠানসমূহে অভিযান পরিচালনা করেছে ভোক্তা অধিকার সংরক্ষণ অধিদপ্তর। এসময় জুয়েলারী শপ ও হোটেলেও অভিযান পরিচালনা করা হয়। রবিবার (৮ নভেম্বর) জাতীয় ভোক্তা অধিকার সংরক্ষণ অধিদপ্তর কক্সবাজার’র সহকারী পরিচালক মোঃ ইমরান হোসাইনের নেতৃত্বাধীন টীম এ অভিযান পরিচালনা করে।
জেলা প্রশাসনের সার্বিক সহায়তায় পরিচালিত এ অভিযানে শহরের পান বাজার রোডের বিভিন্ন শীতবস্ত্রের দোকানে তদারকি করা হয়। এসময় বিসমিল্লাহ মেস্ট্রেস হাউস কে মূল্য তালিকা না রাখা এবং মিথ্যা বিজ্ঞাপন দেওয়ার অপরাধে ১ হাজার টাকা জরিমানা করা হয়।
এছাড়াও বড় বাজার রোডের স্বর্ণের দোকান সমূহে তদারকি এবং স্বর্ণের দোকানের ওয়েট মেশিন হালনাগাদ কিনা তা যাচাই করা হয়। প্রতিটি স্বর্ণের গায়ে কোন ক্যারেট তা খুদাই করে আছে কিনা তাও তদারকি করা হয়।
এসময় চাদনী জুয়েলার্সকে মূল্য তালিকা না রাখার জন্য ১ হাজার টাকা জরিমানা করা হয়। একই অভিযানে পান বাজার রোড এলাকার আল মক্কা হোটেল কে মূল্য তালিকা না রাখা ও নোংরা পরিবেশে খাবার প্রস্তুতের অপ্রাধে ৫ হাজার টাকা জরিমানা করা হয়।
অভিযানকালে ব্যাবসায়ীদের স্বাস্থ্যবিধি মেনে চলা, মূল্য বেশি না রাখা, পর্যটকদের সাথে শোভন আচরন করা, অমুমোদনবিহীন পন্য বিক্রি না করার পরামর্শ দেওয়া হয়।
অভিযানে সার্বিক নিরাপত্তা প্রদান করেন সদর মডেল থানার এক দল সদস্য।
জনস্বার্থে জাতীয় ভোক্তা অধিকার সংরক্ষণ অধিদপ্তর কক্সবাজার জেলা কার্যালয়ের বাজার তদারকি অব্যাহত থাকবে বলে জানিয়েছেন জাতীয় ভোক্তা অধিকার সংরক্ষণ অধিদপ্তর কক্সবাজার’র সহকারী পরিচালক মোঃ ইমরান হোসাইন।

  •  
  •  
  •  
  •  
  •   
  •  
  •