সিবিএন ডেস্ক:
দীর্ঘ সাত মাস পর মক্কার মসজিদে হারামে অনুষ্ঠিত নামাজের জামাতে অংশ নিলেন স্থানীয় মুসল্লিরা। আগে থেকে নিবন্ধন করে তাদের নামাজের জামাতে অংশ নিতে হয়েছে। নতুন সিদ্ধান্ত অনুযায়ী, সৌদি আরবের নাগরিক ও দেশটিতে বসবাসরত ব্যক্তিরা এখন থেকে মসজিদের হারামের জামাতে অংশ নিতে পারবেন নির্দিষ্ট প্রক্রিয়া মেনে।

রোববার (১৮ অক্টোবর) শায়খ আবদুল্লাহ জুহানির ইমামতিতে ফজর আদায় করেন ৪০ হাজার মুসল্লি। করোনাভাইরাস পরিস্থিতির কারণে এতদিন মসজিদে হারামের জামাতে অংশ নেওয়ার অনুমতি ছিলো না।

সাত মাস পর মসজিদে হারামে মুসল্লিদের আবেগী উপস্থিতি দেখা গেছে। ধীরে ধীরে মসজিদে হারাম ফিরছে আগের চেহারায়। বায়তুল্লাহর প্রাঙ্গণ উন্মুক্ত করে দেওয়া হয়েছে ধর্মপ্রাণ মানুষের জন্য।

রোববার (১৮ অক্টোবর) থেকে উমরা চালুর দ্বিতীয় ধাপ শুরু হয়েছে। এখন থেকে দৈনিক ১৫ হাজার মুসল্লি উমরা পালনের সুযোগ পাবেন। সেই সঙ্গে মসজিদে হারামে ৪০ হাজার মুসল্লি নামাজ আদায় করতে পারবেন।

উমরা পালনকারীদের যাবতীয় নিরাপত্তা, সুযোগ-সুবিধা নিশ্চিত করা হয়েছে। ১ নভেম্বর থেকে শুরু হতে যাওয়া উমরার তৃতীয় পর্বে সৌদি আরবের বাইরের দেশের নাগরিকরাও উমরা করার সুযোগ পাবেন। এ সময় প্রতিদিন ২০ হাজার মানুষকে উমরা পালন এবং মসজিদে হারামে ৬০ হাজার মানুষকে নামাজ পড়ার অনুমতি দেওয়া হবে বলে জানিয়েছে সৌদি হজ ও উমরা মন্ত্রণালয়।

স্বাস্থ্যবিধি মেনে চলা নিশ্চিত করতে উমরা পালনের অনুমতির জন্য ‘ইতামারনা’ অ্যাপের মাধ্যমে নিবন্ধন করতে হয়।

চলতি বছরের ২৮ ফেব্রুয়ারি মহামারি করোনাভাইরাসে পুরো বিশ্ব আক্রান্ত হওয়ার সঙ্গে সঙ্গে পবিত্র নগরী মক্কায় উমরা পালন স্থগিত করা হয়।

  •  
  •  
  •  
  •  
  •   
  •  
  •