ওসমান আবির :

কক্সবাজারের টেকনাফে পৃথক অভিযান চালিয়ে ১১ হাজার ৬’শ পিচ ইয়াবা উদ্ধার করেছে মাদকদ্রব্য নিয়ন্ত্রণ অধিদপ্তর (ডিএনসি)।এ সময় এক রোহিঙ্গাসহ তিন মাদক ব্যবসায়ীকে আটক করেছে ডিএনসির সদস্যরা।উদ্ধারকৃত ইয়াবা গুলোর আনুমানিক মূল্য ৩৪ লক্ষ ৯১ হাজার টাকা প্রায়।

আটককৃত আসামীরা হলেন, পৌরসভার দক্ষিণ জালিয়া পাড়ার বাসিন্দা রশিদ আহমদের স্ত্রী দিলদার বেগম (৩৫), বাহাড়ছড়া ইউনিয়নের নোয়াখালী পাড়ার বাসিন্দা উলা মিয়ার পুত্র আলী আহমদ(৩৮) ও মিয়ানমারের কুল্লুম পাড়ার বাসিন্দা আলী আহমদের পুত্র মোহাম্মদ সিদ্দিক(৪৯)।

এই সব অভিযানের সত্যতা নিশ্চিত করেছেন মাদকদ্রব্য নিয়ন্ত্রণ অধিদপ্তরের বিভাগীয় সহকারী পরিচালক সিরাজুল মোস্তফা

ডিএনসির দেওয়া তথ্যসূত্রে জানা যায়, মঙ্গলবার বিকাল ৩টার সময় গোপন সংবাদের ভিত্তিতে টেকনাফ পৌরসভার জালিয়া পাড়া এলাকার বাসিন্দা দিলদার বেগমের বাড়িতে তল্লাশি অভিযান পরিচালনা করে মাদকদ্রব্য নিয়ন্ত্রণ অধিদপ্তরের সদস্যরা।তল্লাশী অভিযানের এক পর্যায়ে বাড়িতে বিশেষ কায়দায় লুকিয়ে রাখা একটি প্লাস্টিকের বক্স থেকে ১ হাজার ৬’শ পিচ ইয়াবা বড়ি উদ্ধার করে।মাদকের সাথে সম্পৃক্ত থাকায় বাড়িতে থাকা দিলদার বেগম (৩৫) নামে এক নারীকে আটক করে ডিনএসির সদস্যরা।এ ঘটনায় তার স্বামী রশিদ আহমদকে পলাতক আসামী করা হয়।

অপরদিকে, একই দিন বিকাল ৫টার সময় গোপন সংবাদের ভিত্তিতে উপজেলার বাহাড়ছড়া ইউনিয়নের নোয়াখালী পাড়া এলাকার মোঃ সিদ্দিকের বাড়িতে তল্লাশী অভিযান পরিচালনা করে ১০ হাজার পিচ ইয়াবা বড়ি উদ্ধার করে।এসময় আলী আহমদ (৩৫) ও রোহিঙ্গা নাগরিক মোঃ সিদ্দিক (৪৯) কে আটক করে ডিএনসির সদস্যরা।

  •  
  •  
  •  
  •  
  •   
  •  
  •