খোরশেদ আলম


মাননীয় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা দেশের মানুষকে ” সেকেন্ড ওয়েভ অর্থাৎ আসছে শীতে করোনা’র দ্বিতীয়বারের মত হানা ” তা মোকাবিলা করার জন্য সম্ভাব্য প্রস্তুতির কথা বলেছেন। ২য় ওয়েভ ইউরোপ – আমেরিকায় ইতিমধ্যে শুরু হয়ে গেছে । প্রস্তুতি বলতে যা বুঝায় এবং ইতিমধ্যে আপনারাও অবহিত আছেন তন্মধ্যে ,
১। মুখে মাস্ক পরে চলাচল করা
২। নিয়মিত সাবান দিয়ে হাত ধোঁয়া ও
৩। সামাজিক দুরত্ব বজায় রাখা ইত্যাদি ।
এব্যাপারে আমরা প্রয়োজনে সবাই সচেতন ।

মুল বিষয় কিন্তু জীবিকা….এ নিয়ে ভাবছেন কেউ ?

সরকার সেক্ষেত্রে প্রয়োজনে সহযোগী হবে — বাকী
যারা যেমন বেসরকারী প্রতিস্টানে চাকুরীজীবি, দোকানদার – ব্যবসায়ী অর্থাৎ লকডাউনে যাদের বেতন বন্ধ হয়ে যায়, ব্যবসা- বানিজ্য বন্ধ থাকে তারা কি করবে ? তাদের জীবন কিভাবে চলবে ?
বর্তমান সময়টুকুতে, বেতনের পাওয়া এই সময়টুকুতে, ব্যবসা- বানিজ্যের এই সময়টুকুতে যা উপার্জিত হচ্ছে তা থেকে ,
তিন ভাগের এক ভাগ কমপক্ষে ব্যাংকে বা নিজের কাছে সঞ্চয় রাখা খুবই জরুরী —
দুর্দিনে, লকডাউনে সহায় হবে বলে আমার ধারণা । শুধুমাত্র ৩/৪ মাস চলতে পারে , অন্ততঃ আধাবেলা খেয়ে বেঁচে থাকতে পারে ততটুকু সঞ্চয় যথেষ্ট । । এদেশের মানুষদের সম্মানবোধ অনেক — তাই , গত লকডাউনে যেভাবে পারে কাজ করে, কাজে গিয়ে বাঁচার চেষ্টা করেছে । আমি একজন সাধারণ মানুষ হয়ে সামান্যটুকু আবেদন – – সামনের দুঃসময়ের জন্য সতর্ক হউন , সঞ্চয় করুন,
আপনার পরিবারকে বাঁচান, মহান রাব্বুল আলামীন সহায় ।

  •  
  •  
  •  
  •  
  •   
  •  
  •