মুহাম্মদ মনজুর আলম, চকরিয়া:
চকরিয়া উপজেলার খুটাখালী ইউনিয়নের মেধাকচ্ছপিয়া এলাকায় পাহাড়ি বনে তুলে নিয়ে গলা ও হাতের কব্জি কেটে দেয়া গুরুতর আহত ভাইবোন হাসপাতালে মৃত্যুর সাথে পাঞ্জা লড়ছে।

এ ঘটনায় থানায় মামলা দায়ের হয়েছে। সোমবার রাতে আহতদের পিতা আবদুচ্ছবি বাদী হয়ে অজ্ঞাত আসামি দেখিয়ে মামলাটি দায়ের করেন।

তবে ঘটনায় জড়িত কাউকে পুলিশ গ্রেফতার করতে পারেনি। এদিকে আহত দুই ভাইবোন মালুমঘাট মেমোরিয়াল খ্রীষ্টান হাসপাতালে ভর্তি রয়েছেন। আহতদের মধ্যে মো. রিয়াজউদ্দিন (৭) এর জ্ঞান ফিরলেও রাজু আক্তার (১১) এর অবস্থা এখনো শংকামুক্ত নয়।

চকরিয়া থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) শাকের মোহাম্মদ যুবায়ের বলেন, আহত দুই শিশুর পিতা বাদী হয়ে থানায় মামলা দায়ের করেছেন। ঘটনার সাথে কারা জড়িত খতিয়ে দেখা হচ্ছে। প্রকৃত অপরাধীদের আইনের আওতায় আনা হবে।

উল্লেখ্য, সোমবার সকালে ঘরে মা-বাবার অনুপস্থিতিতে একদল দূর্বৃত্ত ভাইবোনকে বাড়ির অদূরে পাহাড়ি বনে তুলে নিয়ে গলা কেটে ও হাতের কব্জি কেটে হত্যা চেষ্টা চালায়। খবর পেয়ে স্থানীয় লোকজন তাদের উদ্ধার করে মালুমঘাট খ্রীস্টান হাসপাতালে ভর্তি করেন। আহতদের মধ্যে রিয়াজ উদ্দিনের গলায় দা দিয়ে কোপানো হয়। রাজু আক্তারের দুই হাতের কব্জি প্রায় কেটে দেয়া হয়।

  •  
  •  
  •  
  •  
  •   
  •  
  •