হাবিবুর রহমান সোহেল :

রামু  কচ্ছপিয়া সরকারী প্রাথমিক বিদ্যালয়ের জায়গা দখল করে বহুতল ভবন করছেন স্থানীয়  প্রভাবশালী আবুল শামা ও তার লোকজন। এমনকি বিদ্যালয়ের ম্যানেজিং কমিটি সভাপতি ও প্রধান শিক্ষকের কথা অমান্য করে তারা রাতারাতি ১৫-২০ জন শ্রমিক দিয়ে স্কুলের জায়গায় বহুতল ভবন নির্মান করছেন বলে অভিযোগ পাওয়া গেছে।

জানা যায়, ১৮২৯ সালে বিদ্যালয়টি প্রতিষ্ঠিত হয় । এতদিন স্বাভাবিক ভাবেই চলছিল। এর মধ্যে সপ্তাহ খানিক আগে স্থানীয়  প্রভাবশালীদের ম্যানেজ করে আবুল শাহনার পুত্র নুরুল আমিন গংরা বিদ্যালয়ের পেছনের জায়গায় ভবন নির্মান করছে।

বৃহস্পতিবার সকালে সরেজমিনে গিয়ে দেখা যায়, ১৫- ২০ জন শ্রমিক দিয়ে বসবাসের জন্য বহুতল ভবন উঠাচ্ছেন। ইতোমধ্যে ভবনের ভিত্তিসহ নিচের লিন্টালের কাজও শেষ হয়েছে। এখন চলছে উপরের দিকে উঠানোর কাজ।

এ ব্যাপারে বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক মোঃ আমিন জানান, আবুল শাহমা গংদের ভবন নির্মাণের সময় আমরা বাধা দিলেও কোন কাজ হয়নি। তারা আইনকানুন কিছুই তোয়াক্কা না করে এভাবে স্কুলের জায়গা দখল করছেন। তিনি এই ব্যাপারে  কর্তৃপক্ষকে অবহিত করে ব্যবস্থা নিবেন বলে জানান।

বিদ্যালয়ের ম্যানেজিং কমিটির সভাপতি কচ্ছপিয়া যুবলীগ সভাপতি নজরুল ইসলাম জানান, ওই আবুল শাহমা গং কতিপয় প্রভাবশালীদের ম্যানেজ করে এভাবে সরকারী সম্পত্তি স্কুলের জায়গা দখল করছে । তারা বসবাসের জন্য বহুতল ভবন নির্মান করছে। তাদেরকে শুরু থেকে তিনি বাঁধা দিয়েছেন বলে জানান। তারা এভাবে দখল প্রক্রিয়া অব্যাহত রেখেছে। এ ব্যাপারে তিনি আইনগত ব্যবস্থা নিবেন বলে জানান।

অভিযোগের বিষয়ে  দখলকারী আবুল শাহমার ছেলে, নুরুল আমিনসহ তাদের ভাইদের সাথে কথা  হলে তারা জানান, এটি তাদের বহুদিনের পুরনো জায়গা। তারা স্কুলের প্রধান শিক্ষকের সাথে কথা বলে ওখানে ভবন নির্মান করছেন ।

রামু উপজেলা প্রাথমিক শিক্ষা অফিসার গৌর চন্দ্র জানান, ‘বিষয়টি আমার জানা ছিলো না। খুব দ্রুত খোঁজ নিয়ে এ ব্যাপারে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নেয়া হবে।

  •  
  •  
  •  
  •  
  •   
  •  
  •