উখিয়া মুক্তিযোদ্ধালীগের আলোচনায় বক্তারা

রফিক উদ্দিন বাবুল, উখিয়া ॥

১৫ আগস্ট জাতীয় শোক দিবস এবং ২১ আগস্ট ভয়াল গ্রেনেড হামলায় নিহত শহীদের স্মরণে গতকাল সোমবার বিকেলে উখিয়া সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয় হলরুমে উখিয়া উপজেলা মুক্তিযোদ্ধা লীগের আলোচনা সভা ও দোয়া মাহফিল অনুষ্ঠিত হয়েছে। মুক্তিযোদ্ধা আবু বক্কর ছিদ্দিকের সভাপতিত্বে ও সাধারণ সম্পাদক জাফর আহমদের সঞ্চালনায় অনুষ্ঠিত আলোচনা সভায় প্রধান অতিথি ও কক্সবাজার জেলা যুবলীগের সভাপতি সোহেল আহমদ বাহাদুর বলেন, পঁচাত্তরের ১৫ আগষ্ট ও ২০০৪ সালের ২১ আগষ্টের হামলাকারীরা এক ও অভিন্ন শক্তি। তাদের মূল লক্ষ্য বাংলাদেশকে পাকিস্তানের ধারায় ফিরিয়ে নিয়ে যাওয়া। এদের মূল লক্ষ্য দেশের স্বাধীনতা হত্যা, গণতন্ত্র হত্যা করা। ১৬ বছর অতিবাহিত হলেও ২১ আগস্ট গ্রেনেড হামলার ভয়াবহ স্মৃতি জাতি আজও ভুলতে পারেনি। ভয়াল সেই হামলায় আওয়ামী লীগের ২৪ নেতাকর্মী নিহত হন, আহত হন পাঁচ শতাধিকেরও বেশি লোকজন। আহতদের অনেকেই এখনো তাদের শরীরে গ্রেনেডের স্প্রিন্টার আর দুঃসহ স্মৃতি বয়ে বেড়াচ্ছেন।

অনুষ্ঠানের প্রধান আলোচক ও কক্সবাজার জেলা মুক্তিযোদ্ধালীগের সভাপতি মুক্তিযোদ্ধা জাফর আলম চৌধুরী বলেন, বিএনপি ২১ আগস্টের গ্রেনেড হামলায় উট পাখির মত মুখ বালুতে লুকিয়ে রাখলে সত্য কখনো মিথ্যা হবে না। ২১ আগস্টের গ্রেনেড হামলায় যে বিএনপি জড়িত তা দিবালোকের মতো সত্য, ধামাচাপা দিয়ে কেউ পার পাবে না। তিনি আরো বলেন, সন্ত্রাস বিরোধী সমাবেশে ভয়াবহ গ্রেনেড হামলা চালিয়ে সেদিন বঙ্গবন্ধু কন্যা প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনাকে হত্যা চেষ্টাসহ আওয়ামী লীগকে নিশ্চিহ্ন করতে চেয়েছিল। এই হামলার পেছনে বিএনপি নেত্রী খালেদা জিয়ার ছেলে তারেক জিয়ার প্রত্যক্ষ মদদ রয়েছে। তার হাওয়া ভবন থেকেই এই হামলার পরিকল্পনা করা হয়। সৌভাগ্যবশতঃ সেদিন মাননীয় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা বেঁচে যান। আমরা ২১শে আগস্ট গ্রেনেড হামলার সঙ্গে জড়িত সব খুনিদের অবিলম্বে ফাঁসি কার্যকর করার দাবি করছি।

আলোচনা সভায় অন্যান্যদের মধ্যে বক্তব্য রাখেন, মুক্তিযোদ্ধা বাদশা মিয়া চৌধুরী, মুক্তিযোদ্ধা ছলিম উল্লাহ খান, উখিয়া উপজেলা যুবলীগের সভাপতি মুজিবুল হক আজাদ, সাধারণ সম্পাদক ইমাম হোসেন, উখিয়া কৃষকলীগ সভাপতি সুলতান মাহমুদ চৌধুরী, উপজেলা ছাত্রলীগের সভাপতি মকবুল হোছাইন মিথুন, উপজেলা যুবমহিলা লীগের সহ-সভাপতি আনজুমান আরা, রাজাপালং ইউনিয়ন যুবলীগের সেক্রেটারী রাসেল উদ্দিন সুজন প্রমুখ।

  •  
  •  
  •  
  •  
  •   
  •  
  •