মুহাম্মদ আবু সিদ্দিক ওসমানী :

রামু থানার ৫ পুলিশ ও রামু’র চাকমারকুল ইউনিয়নের এক চৌকিদারের বিরুদ্ধে চাঁদাবাজী, ভাংচুর ও দুর্নীতির অভিযোগ এনে একটি ফৌজদারি দরখাস্ত করা হয়েছে।

কক্সবাজারের জেলা ও দায়রা জজ এবং সিনিয়র স্পেশাল জজ মোহাম্মদ ইসমাইল ফৌজদারি দরখাস্তটির গ্রহনযোগ্যতা শুনানি শেষে বিজ্ঞ আদালত দরখাস্তটি আমলে নিয়ে পুলিশ সুপার পিবিআই, কক্সবাজার’কে তদন্তের নির্দেশ দিয়েছেন। নির্দেশে আগামী ৩০ দিনের মধ্যে আদালতে তদন্ত প্রতিবেদন দাখিল করতে বলা হয়েছে।

সোমবার ২৪ আগস্ট রামু’র চাকমারকুল ইউনিয়ন পরিষদের সাবেক মহিলা মেম্বার ও পশ্চিম চাকমারকুলের হাবিবুর রহমান এর স্ত্রী আরেফা বেগম বাদী হয়ে ফৌজদারী দরখাস্তটি আদালতে দাখিল করেন। বাদীনির পক্ষে সিনিয়র আইনজীবী, ফাইলিং কৌসুলি এডভোকেট মোস্তফা, এডভোকেট আমির হোসেন আদালতে ফৌজদারি দরখাস্তটির গ্রহনযোগ্যতা শুনানি করেন।

ফৌজদারি দরখাস্তে রামু থানার এসআই জয়নাল আবেদীন (৩৭) একই থানার এসআই মংচাই মার্মা (৩৪), এএসআই ইকরাম (৩৫), কনস্টেবল সাইফুল ইসলাম (৩৩), কনস্টেবল অর্নব বড়ুয়া (৩২) এবং রামু উপজেলার তেচ্ছিপুলের বাসিন্দা গোলাম আকবরের পুত্র চৌকিদার শামসুল আলম সহ আরো ৩/৪ জন অজ্ঞাতনামা লোককে আসামী করা হয়েছে। ফৌজদারি দরখাস্তে ৬ জনকে সাক্ষী করা হয়েছে।

ফৌজদারি দরখাস্তে বলা হয়েছে, বাদীনি আরেফা বেগম এর কাছ থেকে দরখাস্তের ১ ও ২ নম্বর আসামি বার বার চাঁদা দাবি করতো, চাঁদা না দিলে বাদীনির কক্সবাজার সরকারি কলেজের দ্বিতীয় বর্ষে পড়ুয়া ছাত্র আশিকুর রহমান রনি’কে ইয়াবা দিয়ে চালান দেওয়া হবে বলে হুমকি দেয়। বাদীনি চাঁদা দিতে অস্বীকার করায় গত ৩০ জুলাই দিবাগত রাত পৌনে ২ টার দিকে বাদীনীর বাড়িতে গিয়ে মূল্যবান গৃহজ সামগ্রী, ইলেকট্রনিক্স, আসবাবপত্র, বাড়িঘর ভাংচুর ও লুটপাট করে। যার মূল্য ৬ লক্ষ ২৩ হাজার ৯০০ টাকা। এর পর আসামীরা বাদীনির সন্তান আশিকুর রহমান রনি’কে ধরে নিয়ে যায়। বাদীনি নিরুপায় হয়ে আসামীদের ৫০ হাজার টাকা প্রদান করেন। এতে আসামীরা অসন্তুষ্ট হয়ে বাদীনির পুত্র আশিকুর রহমান রনি’কে ৯৫ পিচ ইয়াবা দিয়ে মাদক দ্রব্য নিয়ন্ত্রণ আইনে একটি মামলা দিয়ে চালান দেয়। যার রামু থানার মামলা নম্বর : ৫৫/২০২০, যার-জিআর মামলা নম্বর- ৩০৮/২০২০ ইংরেজি। তারিখ-৩০/০৭/২০২০ ইংরেজি। ধারা : ১৯৪৭ সালের দুর্নীতি দমন আইনের ৫(২) তৎসহ দন্ড বিধির ১৪৩, ৩২৩, ৩৫৪, ৩৮৫, ৩৮৬, ৩৮০, ৪২৭ ও ৩৪।

প্রসঙ্গত, ৯৫ পিচ ইয়াবা দিয়ে বর্ণিত ফৌজদারি দরখাস্তের আসামীরা কর্তৃক চালান দেয়া বাদীনির পুত্র আশিকুর রহমান রনি’কে জেলা ও দায়রা জজ মোহাম্মদ ইসমাইল ফৌজদারি মিচ মামলা মূলে গত ১৮ আগস্ট জামিন দিয়েছেন।

  •  
  •  
  •  
  •  
  •   
  •  
  •