মুহাম্মদ আবু সিদ্দিক ওসমানী :

করোনামুক্ত হয়েছেন চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয়ের (চবি) উপাচার্য প্রফেসর ড. শিরীণ আখতার। একইসাথে স্বামী, মেয়ে ও তিন নাতি-নাতনী সহ উপাচার্যের পরিবারের আরো ৫ সদস্য করোনা মুক্ত হয়েছেন।

তবে উপাচার্য প্রফেসর ড. শিরীণ আখতার এর স্বামী মেজর (অব.) মো. লতিফুল আলম চৌধুরী করোনামুক্ত হলেও তার অক্সিজেন স্যাচুরেশন উঠা নামা করায় তিনি সম্মিলিত সামরিক হাসপাতালের আইসিইউতে এখনো চিকিৎসাধীন আছেন।

চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয় সূত্রে জানা যায়, গত ২০ জুলাই সিএমএইচে চিকিৎসাধীন থাকা অবস্থায় চবি উপাচার্য প্রফেসর ড. শিরীণ আখতার ও তার পরিবারের অন্য ৫ সদস্যের ফলোআপ টেস্ট রিপোর্ট ‘নেগেটিভ’ আসে।তবে উপাচার্যের স্বামী মো. লতিফুল আলম চৌধুরী করোনা ‘নেগেটিভ’ হলেও তার অক্সিজেন লেভেল কমে যাওয়ায় তাকে হাসপাতালের আইসিইউতে রাখা হয়েছে।
অন্যদিকে, পরিবারের অন্য ৪ সদস্যকে নিয়ে ২১ জুলাই উপাচার্যের বাসভবনে ফিরেছেন উপাচার্য ড. শিরীণ আখতার।

চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয়ের নির্ভরযোগ্য সুত্র এসব তথ্য নিশ্চিত করেছেন। সুস্থ হয়ে বাসভবনে ফিরে আসা উপাচার্য সহ ৫ জনকে আগামী ২ আগস্ট পর্যন্ত হোম কোয়ারেন্টাইনে থাকতে চিকিৎসকগণ পরামর্শ দিয়েছেন বলে সুত্রটি জানিয়েছেন।

জানা যায়, গত ১১ জুলাই চবি উপাচার্য প্রফেসর ড. শিরীণ আখতার ও তাঁর পরিবারের আরো ৫ সদস্য করোনা ‘পজিটিভ’ হন। একইসঙ্গে আক্রান্ত হন উপাচার্যের বাংলোর দুই কর্মচারী। পরদিন ১২ জুলাই থেকে তারা সম্মিলিত সামরিক হাসপাতালে ভর্তি হয়ে চিকিৎসা নেন।

  •  
  •  
  •  
  •  
  •   
  •  
  •