মুহাম্মদ মনজুর আলম , চকরিয়া :

বাঙ্গালী জাতির স্বপ্নদ্রষ্টা জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের জন্মশতবার্ষিকী উপলক্ষ্যে, “মুজিববর্ষ ২০২০” ও করোনামুক্ত সবুজ চকরিয়া- পেকুয়া গড়ার প্রত্যয়ে , ড. সজীবের উদ্যোগে চকরিয়া- পেকুয়া উপজেলার বিভিন্ন স্থানে ব্যাপক ভাবে বৃক্ষরোপণ ও দরিদ্র জনগোষ্টির মাঝে খাদ্য সহায়তা বিতরণসহ ৩ প্রতিবদ্ধীকে হুইল চেয়ার প্রদান করা হয়েছে।

সম্প্রতি সময়ে চকরিয়া- পেকুয়া এ দু’টি উপজেলার বিভিন্ন গুরুত্বপূর্ণ দর্শনীয় স্থানসহ স্কুল ,কলেজ , মাদ্রাসা এবং ২৫টি ইউনিয়ন ও ১টি পৌরসভার ৯টি ওয়ার্ডে ব্যাপক বৃক্ষরোপণ করার পাশাপাশি বেশকিছু অসহায় পরিবারকে খাদ্য সহায়তাও প্রদান করা হয় ।

সরকার ইতোমধ্যে ২০২০সালকে মুজিববর্ষ ঘোষনা করেছেন। তারই আলোকে বাংলাদেশ আওয়ামীলীগ কেন্দ্রীয় পর্যায় থেকে শুরু করে তৃণমূল পর্যায় পর্যন্ত বর্ষটিকে সামনে রেখে সাংগঠিনকভাবে ও ব্যক্তি পর্যায়ে বিভিন্ন কর্মসূচি গ্রহন করে। তারই ধারাবাহিকতায় কক্সবাজার জেলা আওয়ামীলীগের শিক্ষা ও মানব সম্পদ সম্পাদক ড.আশরাফুল ইসলাম সজীবের উদ্যোগে চকরিয়া – পেকুয়ার বেশকিছু উদ্যোমী তরুণ যুবক বৃক্ষ রোপণসহ নানা রকম কর্মসূচী হাতে নেয় । ইতিমধ্যে বৃক্ষ রোপনসহ নানা কর্মসূচী বাস্থবায়ন করা হচ্ছে । তাছাড়া দু’টি উপজেলায় সাধারণ মানুষের মাঝে বিভিন্ন প্রজাতির বনজ-ফলজ, ওষধি গাছের চারাও উপহার দেওয়া হয়। পাশাপাশি করোনা মহামারিতে হতদরিদ্র অসহায় মানুষের মাঝে বিপুল পরিমানে খাদ্য সামগ্রী বিতরণ ও ৩জন প্রতিবদ্ধী মানুষকে ফ্রি চিকিৎসা সেবাসহ ৩টি হুইল চেয়ার প্রদান করা হয় ।

ড. সজীব জানান, চকরিয়া উপজেলার ঢেমুশিয়া ইউনিয়ন থেকে শুরু করে প্রতিদিন ২টি করে চকরিয়া – পেকুয়া উপজেলার ২৫টি ইউনিয়ন ও ১টি পৌরসভায় এসব কর্মসূচী বাস্থবায়ন করবেন বলে জানান তিনি।

চকরিয়ার ছাত্রলীগ নেতা ও (সামাজিক সেচ্ছাসেবী সংগঠন) এক্সপ্রেসের সমন্বয়ক মোঃ শামিমুল ইসলাম পাপেল জানান , কক্সবাজার জেলা আওয়ামীলীগের শিক্ষা ও মানব সম্পদ সম্পাদক ড.আশারাফুল ইসলাম সজীবের উদ্যোগে ও সামাজিক সেচ্ছাসেবী সংগঠন চকরিয়া-পেকুয়া এক্সপ্রেসের সহযোগীতায় গত ৭ জুলাই থেকে বৃক্ষ রোপন কর্মসূচীসহ আরও বিভিন্ন ধরনের কার্যক্রম শুরু করা হয় ।

প্রতিদিন সকাল থেকে সন্ধ্যা পর্যন্ত চকরিয়া -পেকুয়া উপজেলার ইউনিয়ন গুলোতে চারাগাছ রোপণ ও বিতরণের কাজ করে যাচ্ছেন সামাজিক সেচ্ছাসেবী সংগঠন এক্সপ্রেসের সমন্বয়ক শামীমুল ইসলাম পাপেল, আমির উদ্দীন, তেহরান হাবীব নিরব, উপ-সমন্বয়ক- ফারজানা ইসলাম, ফাহিম মুনতাসির ইফতি, শামীম শাউন, আসমাউল হুসনা সাজিয়া, সাউরিন ফেরদৌসি, খান মো: মঈনউদ্দীন, ইনসান কামাল সাফাত, তোফাজ্জল হোসেন, জাহিদ হাসান মিলু ।

তিনি আরোও জানান চকরিয়া – পেকুয়া উপজেলার ২৫টি ইউনিয়ন, ১টি পৌরসভায় তাদের এই কার্যক্রম শেষ হতে আরও ৮/৯দিন সময় লাগতে পারে। প্রতিটা ইউনিয়নে ২০০ শতাধিক বনজ-ফলজ, ওষধি গাছের চারা রোপন করা হচ্ছে। এপর্যন্ত গত ৫দিনে ১১টি ইউনিয়নে বৃক্ষ রোপন শেষ করা হয়েছে ।

এ বিষয়ে জানতে চাইলে , কক্সবাজার জেলা আওয়ামীলীগের শিক্ষা ও মানব সম্পদ সম্পাদক ড. আশারাফুল ইসলাম সজিব বলেন, জাতির জনকের জন্মশতবার্ষিকী উপলক্ষে জননেত্রী শেখ হাসিনার সিদ্ধান্তের আলোকে চকরিয়া-পেকুয়ায় নানা কর্মসূচি হাতে নিয়েছি, তারই অংশ হিসেবে, স্থানীয় আওয়ামীলীগ, যুবলীগ ও ছাত্রলীগের নেতাকর্মীদের দিয়ে চকরিয়া- পেকুয়া উপজেলার ২৫টি ইউনিয়ন, ১টি পৌরসভায় বৃক্ষরোপণ কার্যক্রম ও অসহায় মানুষর মাঝে উপহার সামগ্রী পৌছানো হচ্ছে। আগামীতে চকরিয়া – পেকুয়া উপজেলার তৃণমূল পর্যায়ে আরো বেশী কার্যক্রম অব্যাহত ও বৃদ্ধি করা হবে ।

  •  
  •  
  •  
  •  
  •   
  •  
  •