রাজু দাশ ,চকরিয়া :
বিশ্ব জুড়ে ছড়িয়ে পড়েছে করোনা আতঙ্ক, সেই আতঙ্কের কক্সবাজার চকরিয়া শেখ মুজিব সাফারি পার্ক দর্শনীয় স্থান বন্ধের ঘোষনা দিয়েছে পার্কে কর্তৃপক্ষ। দীর্ঘদিন যাবত বন্ধ থাকায় সৌন্দর্যর ভরে উঠেছে রঙিন ফুলে। করোনায় দর্শনার্থী না থাকায় উন্মুক্তভাবে বিচরণ করছে পশুপাখি।

পার্কে কর্তৃপক্ষ সূত্রে জানা যায়, প্রকৃতিতে এসেছে সজীবতা পাশাপাশি একের পর এক প্রাণির বংশ বিস্তার হচ্ছে। পরিচ্ছন্ন পার্কে বিশাল আকৃতির গাছে গাছে গজিয়েছে বাহারি রঙের নতুন ফুল-পাতা। আপন মনে খেলছে পশু পাখিট দল গুলো। গাছে গাছে ছুটে বেড়াচ্ছে কাঠবিড়ালি-বানর। লেকের স্বচ্ছ পানিতে সাঁতার কাটছে একদল সাদা বক। একটু পর পর পানির নিচ থেকে উঁকি দিচ্ছে জলহস্তীরা। শব্দ পেলেই বনের ভেতর থেকে উঁকি দিচ্ছে হরিণের দল। খাবারের খোঁজে এদিক-ওদিক ঘুরে বেড়াচ্চগে সাদা-কালো ডোরার জেব্রাগুলো। খাঁচার ভেতর অলস সময় কাটছে বাঘ-সিংহের।

ডুলাহাজারা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিব সাফারি পার্কের ইনচার্জ ফরেস্টার মাজহারুল ইসলাম চৌধুরী বলেন, দর্শনার্থীবিহীন পার্কে দিন-রাত্রীর পুরোটা সময় এখন প্রাণ প্রকৃতির। এরমধ্যে তাদের সংসার জুড়ে এসেছে নতুন অতিথিও। রঙিন ফুলে ভরে উঠেছে পার্ক, এ কারণে প্রকৃতি ফিরে পেয়েছে হারানো জৌলুস। পশু-পাখিগুলোও পেয়েছে নিরাপদ আবাসস্থল। এবং হরিণসহ বেশ কিছু পশু-পাখির বংশ বিস্তার হয়েছে মহামারি করোনাকালীন। যা করোনা পরবর্তী সময়ে দর্শনার্থীদের বাড়তি আনন্দ দিবে বলে এমনটাই মনে করেন পার্কের কর্মকর্তরা।

  •  
  •  
  •  
  •  
  •   
  •  
  •