শ্যামল রুদ্র :

পার্বত্য চট্টগ্রাম জনসংহতি সমিতি মানবেন্দ্র নারায়ণ লারমা গ্রুপের প্রতিষ্ঠাতা সভাপতি ও সাবেক গেরিলা নেতা সুধা সিন্ধু খীসা আর নেই। গতরাত ১২ টা ০৫ মিনিটে খাগড়াছড়ি সদরের কদমতলীস্থ বাসভবনে তিনি শেষ নি:শ^াস ত্যাগ করেন। মৃত্যুকালে তার বয়স ছিল ৭৭ বছর। দীর্ঘদিন ধরে তিনি কিডনী সহ বার্ধক্যজনিত রোগে ভুগছিলেন।

বুধবার বিকেল ৩ টায় জন্মস্থান খাগড়াছড়ির মহালছড়ি উপজেলার খুলারাম পাড়ার পারিবারিক শ্মশানে তার দাহক্রিয়া অনুষ্ঠিত হওয়ার কথা জানিয়েছেন জেএসএস এমএন লারমা গ্রুপের মুখপাত্র সুধাকর ত্রিপুরা।

বর্ণাঢ্য রাজনৈতিক জীবনে অসংখ্য সমর্থকের পাশাপাশি মৃত্যুকালে তিনি স্ত্রী, এক ছেলে ও দুই মেয়েসহ অসংখ্যা গুণগ্রাহী রেখে গেছেন।

সুধা সিন্ধু খীসার দীর্ঘ গেরিলা জীবনের অবসান ঘটে ১৯৯৭ সালের ২ রা ডিসেম্বর পার্বত্য চট্টগ্রাম শান্তি চুক্তির পর। অবিভক্ত পার্বত্য চট্টগ্রাম জনসংহতি সমিতির অন্যতম পদে দায়িত্ব পালন করেছিলেন তিনি।

 


 

খাগড়াছড়িতে ফলদ বাগান মালিকদের সংবাদ সম্মেলন

শ্যামল রুদ্র :

খাগড়াছড়ি জেলায় উৎপাদিত আমসহ ফলমূলের পরিবহনে উপর পৌরসভা ও জেলা পরিষদের অতিরিক্ত টোল আদায় বন্ধ এবং বাগান মালিকদের হয়রানির প্রতিবাদে সংবাদ সম্মেলন অনুষ্ঠিত হয়েছে। বুধবার সকালে খাগড়াছড়ি প্রেস ক্লাবে খাগড়াছড়ি ফলদ বাগান মালিক সমবায় সমিতি ও মারমা ফলদ বাগান মালিক সমিতির যৌথ উদ্যোগে সংবাদ সম্মেলনের আয়োজন করা হয়।

বাগান মালিক সমিতির নেতারা লিখিত বক্তব্যে অভিযোগ করে বলেন, খাগড়াছড়িতে ৩ টি পৌরসভা, জেলা পরিষদ ও বাজার ফা-ের টোল কেন্দ্র গুলোতে আমসহ ফলজ পণ্য বহনকারী পরিবহনের উপর সরকার নির্ধারিত টোলের অতিরিক্ত দুই থেকে তিন’শ গুণ টাকা আদায় করা হচ্ছে। দীর্ঘদিন ধরে টোল পয়েন্টগুলো সিন্ডিকেটের হাতে জিম্মি থাকায় বাগান মালিক ও ব্যবসায়ীদের হয়রানি করছে। এসবের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা গ্রহণে প্রশাসনের কাছে গিয়েও কোন সুরাহা মিলছে না। এতে করে খাগড়াছড়ি থেকে ফল কিনতে আগ্রহ হারাচ্ছে বাইরের ব্যবসায়ীরা। এভাবে চললে এ জেলার বাগান মালিকরা বিশাল অর্থনৈতিক ক্ষতির সম্মুখীন হবে বলেও আশঙ্কা করা হয় সংবাদ সম্মেলন থেকে।

  •  
  •  
  •  
  •  
  •   
  •  
  •