রাজু দাশ, চকরিয়া:
করেনার এই দুঃসময়ে থেমে নেই জুয়া খেলার আসর। দোকানপাট, খেলারমাঠ কিংবা খোলা মাঠে দলবেঁধে আসর বসানো হচ্ছে। জুয়া খেলার আয়োজকদের বড় একটি অংশ যুবক-কিশোর সমাজ। চলছে মাদক সেবন। কেউ বারণ করলে নেমে আসে উল্টো প্রতিবাদ-নির্যাতন।

চকরিয়া পৌরসভা ৩নং ওয়ার্ডে বিমানবন্দরে আবাসিক এলাকায় পশ্চিম পাশে কসাইপাড়া বিভিন্ন প্লট গুলোতে নিরাপদ স্থান হিসেবে বেছে নিয়েছে জুয়ারিরা। জুয়ার আসরে যোগ দেয় জুয়াড়িরা। নিত্য দিন চলে জোয়ার আসার এবং ইয়াবা সেবন।

নাম অনিচ্ছুক স্থানীয় কয়েকজন লোকজন জানান, একটি প্রভাবশালী মহলের ছত্রছায়ায় এভাবে অবাধে দিনদুপুরে জুয়া খেলা চালিয়ে যাচ্ছে। হাজার হাজার টাকার জুয়ার আসর বসাচ্ছে। বর্তমানে করোনা মহামারীতেও তাদের জুয়ার আসর বন্ধ হয়নি বরং আরো বেড়েছে। কারণ লকডাউন এর কারণে অধিকাংশ মানুষই এখন কর্মহীন বেকার এই সুযোগে তারা জুয়ার আসরে ভিড় জমাচ্ছেন। জুয়ার টাকা যোগান দিতে গিয়ে এলাকায় চুরি-ডাকাতি বেড়ে গেছে। আর এই জুয়ার আসরে বিরুদ্ধে কেউ কথা বলতে গেলেই উল্টা তখন তাকে গালিগুলাজ এবং হামলায় শিকার হতে হয়। সে ভয়ে কেউই প্রতিবাদ করার সাহস পায় না। সাধারণ মানুষের নিরাপত্তা নিশ্চিত করতে পুলিশের টহল আরো জোরদার করা জন্য প্রশাসনের প্রতি দৃষ্টি আকর্ষণ করেছেন স্থানীয় সাধারণ লোকজন।