বিদেশ ডেস্ক:

সৌদি আরবে করোনাভাইরাস শনাক্ত হওয়া রোগীর সংখ্যা এক লাখ ছাড়িয়েছে। ব্রিটিশ সংবাদমাধ্যম দ্য গার্ডিয়ান জানিয়েছে, দেশটিতে গত ১০ দিনে শনাক্ত হওয়া নতুন রোগীর সংখ্যা বৃদ্ধি পাওয়ার পর রবিবার (৭ জুন) নিশ্চিত মোট আক্রান্তের সংখ্যা দাঁড়িয়েছে ১ লাখ ১ হাজার ৯১৪ জনে। এদিকে করোনার প্রকোপ বৃদ্ধিতে আসন্ন হজ অনুষ্ঠিত হবে কি-না তা নিয়ে সংশয় দেখা দিয়েছে।

সোমবার (৮ জুন) সৌদি আরবের স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয় সূত্রে দ্য গার্ডিয়ান জানিয়েছে, এখন পর্যন্ত সেদেশে করোনা আক্রান্ত হয়ে মৃত্যু হয়েছে ৭১২ জনের। খবরে বলা হয়, সম্প্রতি কঠোর লকডাউন শিথিল করার পরপরই সৌদি আরবে করোনার সংক্রমণ বাড়তে শুরু করেছে। সর্বশেষ শনি ও রবিবার পরপর দুই দিনই ৩ হাজারেরও বেশি মানুষের করোনা শনাক্ত হয়।

এদিকে করোনার সংক্রমণ ঠেকাতে গত শুক্রবার (৫ জুন) হজ ও ওমরাহ ঘিরে মুসলিমদের পবিত্র শহর মক্কায় যাওয়ার প্রবেশপথ বন্দরনগরী জেদ্দায় নতুন করে লকডাউন ঘোষণা করে সৌদি আরব। লকডাউনের মধ্যে বিকেল ৩টা থেকে ভোর ৬টা পর্যন্ত কারফিউও থাকবে। মসজিদগুলোতে নামাজ স্থগিত করা হয়েছে। এছাড়া সব সরকারি ও বেসরকারি কর্মজীবীদের ঘরে থাকার নির্দেশ দেওয়া হয়েছে।

করোনা পরিস্থিতির কারণে এর আগেই ওমরাহ পালন স্থগিত করে সৌদি আরব। ওই স্থগিতাদেশ বহাল থাকবে বলে জানিয়েছে কর্তৃপক্ষ। তবে হজ নিয়েও অনিশ্চয়তা রয়েছে বলে জানিয়েছে গার্ডিয়ান। করোনা পরিস্থিতি ও সৌদিতে ভাইরাসের সংক্রমণ বাড়তে থাকায় জুনের শেষভাগে এ বছরের হজ আদৌ অনুষ্ঠিত হবে কি-না, এ ব্যাপারে এখন পর্যন্ত কর্তৃপক্ষ কোনও ঘোষণা দেয়নি। যদিও এর আগে মুসলিমদের এ বছরের হজ মুলতবি করার অনুরোধ জানায় তারা।

  •  
  •  
  •  
  •  
  •   
  •  
  •