মুহাম্মদ আবু সিদ্দিক ওসমানী :

কক্সবাজার মেডিকেল কলেজের ল্যাবে রোববার ৩১মে ২৫৮জনের স্যাম্পল টেস্টের মধ্যে মোট ৭০জনের রিপোর্ট ‘পজেটিভ’ পাওয়া গেছে। তারমধ্যে, কক্সবাজার জেলার ৬৪জন, ভিন্ন জেলার ২জন এবং পুরাতন করোনা ভাইরাস আক্রান্ত রোগীর ফলোআপ টেস্টে ৪ জনের ‘পজেটিভ’ রিপোর্ট পাওয়া গেছে। বাকী ১৮৮জনের রিপোর্ট ‘নেগেটিভ’ পাওয়া যায়।

কক্সবাজার মেডিকেল কলেজের অধ্যক্ষ ডা. অনুপম বড়ুয়া সিবিএন-কে এতথ্য নিশ্চিত করেছেন।

রোববার ৩১মে নতুন ‘পজেটিভ’ রিপোর্ট পাওয়া ৬৪জন করোনা রোগীর মধ্যে কক্সবাজার সদর উপজেলায় ৩৫জন, উখিয়া উপজেলায় ১২ জন, টেকনাফ উপজেলায় ১১জন, রামু উপজেলায় ২জন, পেকুয়া উপজেলায় ১জন, মহেশখালী উপজেলায় ১জন ও চকরিয়া উপজেলায় ২জন। এছাড়া বান্দরবান জেলার নাইক্ষ্যংছড়ি উপজেলায় ১জন ও লামা উপজেলায় ১জন।

তাছাড়া, আগে থেকেই করোনা আক্রান্ত হওয়া ৪জন রোগীর ফলোআপ টেস্ট রিপোর্ট একইদিন ‘পজেটিভ’ পাওয়া যায়।

এনিয়ে কক্সবাজার জেলায় আজ পর্যন্ত করোনা ভাইরাসে আক্রান্ত হয়েছেন মোট ৭০৪ জন। যারমধ্যে ২৭জন রোহিঙ্গা শরনার্থীও রয়েছে।

কক্সবাজার জেলা প্রশাসন ও সিভিল সার্জন অফিসের তথ্য অনুযায়ী উপজেলা ভিত্তিক পরিসংখ্যান হলো : কক্সবাজার সদর উপজেলায় করোনা ভাইরাসে আক্রান্ত হয়ে মৃত্যুবরণ করছেন ৯জন, চকরিয়া উপজেলায় মৃত্যুবরণ করেছেন ৪জন এবং রামু উপজেলায় মৃত্যুবরণ করেছেন ১জন। এনিয়ে কক্সবাজার জেলায় করোনা রোগী মৃত্যুবরণ করেছেন সর্বমোট ১৪জন।

এদিকে, কক্সবাজার সদর উপজেলায় আক্রান্ত হয়েছেন ২৮৬ জন। রামু উপজেলায় আক্রান্ত হয়েছেন ২৬জন। চকরিয়ায় আক্রান্ত হয়েছেন ১৫৯জন। পেকুয়া উপজেলায় আক্রান্ত হয়েছেন ৩৯জন। মহেশখালী উপজেলায় আক্রান্ত হয়েছেন ৩২জন। কুতুবদিয়া উপজেলায় আক্রান্ত হয়েছেন ২জন। টেকনাফ উপজেলায় আক্রান্ত হয়েছেন ৩২জন। উখিয়া উপজেলায় আক্রান্ত হয়েছেন ১০১জন।
রোহিঙ্গা শরনার্থী আক্রান্ত হয়েছেন ২৭জন। এছাড়া কক্সবাজার জেলার বাসিন্দাদের মোট করোনা স্যাম্পল টেস্ট করা হয়েছে মোট ৬৭৫৫ জনের।

  •  
  •  
  •  
  •  
  •   
  •  
  •