সিবিএনঃ
কক্সবাজার সদরের খুরুশকুলের বাসিন্দা, সুগন্ধা গেস্ট হাউসের মালিক আবু সুলতান প্রকাশ নাগু কোম্পানির মৃত্যু নিয়ে গুজব না ছড়ানোর অনুরোধ জানিয়েছেন ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ও ইউপি চেয়ারম্যান জসিম উদ্দিন।

তিনি বলেন, নাগু কোম্পানির মৃত্যুর পর সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে তিনি করোনা আক্রান্ত বলে লেখালেখি হচ্ছে। যা দেখে আমি খুবই মর্মাহত।

একজন মৃত ব্যাক্তিকে নিয়ে এ ধরণের অপবাদ বর্তমান সভ্য সমাজে মানানসই নয়।

তিনি আসলে করোনায় আক্রান্ত ছিলেন কিনা, আপাততঃ মন্তব্য করার সুযোগ নেই।

সরকারী বিধি অনুসারে যথাযথ প্রক্রিয়ায় তার স্যাম্পল নেয়া হয়েছে। রিপোর্ট আসলেই নিশ্চিত হওয়া যাবে।

জসিম চেয়ারম্যান বলেন, সদর হাসপাতালের আরএমও’র সাথে আমি যোগাযোগ করেছি।

পরীক্ষার রিপোর্ট কাল না হলে পরের দিন পাওয়া যাবে বলে তিনি জানিয়েছেন।

আমার প্রশ্ন হল, রিপোর্ট হাতে না পাওয়ার আগেই আপনারা কিভাবে এমন মন্তব্য করেন?

মনে রাখা দরকার, একে একে আমাদের সাবাইকে দুনিয়ার লোভ লালসা ছেড়ে চলে যেতে হবে।

না জেনে যদি কানো মৃত ব্যাক্তির নামে অপবাদ দিয়ে থাকেন, তাহলে মনে রাখবেন আপনারও একদিন মৃত্যু হবে। ঠিক সেইদিন আপনাকেও কেউ না কেউ এই ধরণের অপবাদ দিবে।

অহেতুক গুজব না ছড়াতে জাতি, ধর্ম, বর্ণ নির্বিশেষে সবার প্রতি অনুরোধ করছি।

উল্লেখ্য, বৃহস্পতিবার (২৮ মে) সকাল পৌনে ৯ টার দিকে কক্সবাজার সদর হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় নাগু কোম্পানি শেষ নিঃশ্বাস ত্যাগ করেন।

একই দিন বেলা ২ টার দিকে খুরুশকুলের ফকির পাড়া জামে মসজিদের মাঠে সরকারি নিয়ম মোতাবেক জানাজা শেষে স্থানীয় পারিবারিক কবরস্থানে তাকে দাফন করা হয়।

তিনি ৪ ছেলে ৩ মেয়ের জনক। মৃত্যুকালে তার বয়স হয়েছিল ৭০ বছর।

  •  
  •  
  •  
  •  
  •   
  •  
  •