ফারুক আহমদ :

উখিয়ার সোনাইছড়িতে মাহমুদুল হক (৩২) নামক এক যুবককে অপহরণের শিকার হয়েছে। পূর্ব শত্রুতার জের ধরে চিহ্নিত দুর্বৃত্তরা পরিকল্পিতভাবে তাকে অপহরণ করছে বলে দাবি পরিবারের। আজ মঙ্গলবার( ৫ মে) বিকেল সাড়ে তিনটার দিকে পশ্চিম সোনাইছড়িতে প্রকাশ্য দিবালোকে অপহরণের ঘটনাটি সংঘটিত হয়েছে।
থানায় দায়ের কৃত এজাহার সূত্রে জানা যায় , উপজেলার জালিয়া পালং ইউনিয়নের দক্ষিণ সোনাইছড়ি গ্রামের মৃত ফজল করিমের পুত্র মাহমুদুল হক ও ছোট বোন নুরজাহান বেগম সোনার পাড়া বাজার হতে গাড়ি যোগে বাড়িতে ফেরার পথে চিহ্নিত দুর্বৃত্তরা গতিরোধ করে ফিল্মি কায়দায় মাহমুদুল হককে অপহরণ করে। বাদী নুরজাহান বেগম জানান জমি বিক্রি করে টাকা নিয়ে বাড়িতে ফেরার পথে একই এলাকার সানাউল্লাহ ও শামসুল আলম সোহাগের নেতৃত্বে ১০/১২ জন লোক আমার বড় ভাই মাহমুদুল হককে মারধর করে অপহরণ করে নিয়ে যায়।
পরিবারের সদস্যরা জানান দুর্বৃত্তরা ওই সময় সাড়ে তিন লক্ষ টাকা ও মোবাইল সেট ছিনিয়ে নেন।
এলাকাবাসী জানান গত এপ্রিল মাসে একটি বিচ্ছিন্ন ঘটনায় মাহমুদুল হককে মিথ্যা মামলায় আসামি করে ওই গ্রুপ।
মূলত এলাকায় আধিপত্য বিস্তারকে কেন্দ্র করে গণপূর্ত প্রকৌশল অধিদপ্তরের অফিস বিভাগের সানাউলা এবং মানব ও ইয়াবা পাচার মামলার আসামি শামসুল আলম সোহাগ নির্দেশে একের পর এক ঘটনা সংঘটিত হচ্ছে। এদিকে ইতিপূর্বে দেলোয়ার হোসেনকে চুরিকাঘাত হত্যার চেষ্টা চালিয়ে গুরুতর জখম করেছে নান্নু বাহি। অপহরণের শিকার মাহমুদুল হককে দ্রুত দুর্বৃত্তদের কবল থেকে উদ্ধারের দাবি জানিয়েছেন গ্রামবাসীরা।
এ ব্যাপারে নুরজাহান বাদী হয়ে সানাউল্লাহ আনসার উল্লাহ শামসুল আলম সোহাগ মনজুর আলম জাফর আলম জাহিদুল ইসলাম সহ ৮ জনকে আসামি করে উখিয়া থানায় এজাহার দায়ের করা হয়েছে।
থানার ডিউটি অফিসার জানান অভিযোগের ভিত্তিতে অপহরণের শিকার যুবককে উদ্ধারের চেষ্টার উদ্যোগ নিয়েছেন পুলিশ।

  •  
  •  
  •  
  •  
  •   
  •  
  •