সংবাদদাতা :

বঙ্গবন্ধুর কন্যা দেশরত্ন শেখ হাসিনা ও কেন্দ্রীয় ছাত্রলীগের আহ্বানে সাড়া দিয়ে কক্সবাজারে লবণ চাষীদের লবণ উঠায় দিল ছাত্রলীগ। মহেশখালী উপজেলার মাতারবাড়ি-ধলঘাটা ইউনিয়নের লবণচাষী মোহাম্মদ রফিকের লবণচাষ করে জীবিকা নির্বাহ করেন। করোনা ভাইরাস সংক্রমণ রোধে সারাদেশ লকডাউন হওয়ায় পরিস্থিতির কারণে শ্রমিক না পাওয়ায় মোহাম্মদ রফিক তার লবণচাষ নিয়ে অনেক কষ্টে থাকেন। খবর পেয়ে কক্সবাজার জেলা ছাত্রলীগের নেতাকর্মীরা আজ মঙ্গলবার লবণচাষী রফিকের ৬ কানি জমির লবণ তুলে দেন।

কক্সবাজার জেলা ছাত্রলীগের সহ-সম্পাদক ও কক্সবাজার শহর ছাত্রলীগের ছাত্র-বৃত্তি বিষয়ক সম্পাদক এবং কক্সবাজার সরকারি কলেজ ছাত্রলীগের সহ-সভাপতি আসাদুজ্জামান নিরুর নেতৃত্বে ২০জন ছাত্রলীগের নেতাকর্মী স্বেচ্ছাসেবী হিসেবে কাজ করেন।

ছাত্রলীগ নেতা আসাদুজ্জামান নিরু বলেন, দেশরত্ন শেখ হাসিনা ও কেন্দ্রীয় ছাত্রলীগ নির্দেশ দিয়েছে হতদরিদ্র ও চাষী, কৃষকদের পাশে থাকতে। ছাত্রলীগ যেকোনো মানবিক সঙ্কটে সাধারণ মানুষের পাশে থাকে।

করোনা মোকাবেলায় মাঠে থেকে সর্বোচ্চ কাজ করছে ছাত্রলীগ। এরই ধারাবাহিকতায় ইউনিয়ন ছাত্রলীগের মাধ্যমে খবর পাই দেশ লকডাউনের হওয়াই শ্রমিক সংকটের কারণে মোহাম্মদ রফিক তার লবণচাষ নিয়ে কষ্টে আছেন। কাল বৈশাখী মাস যে কোনো সময়ে ঝড় বৃষ্টি হলে লবণ ক্ষতিগ্রস্ত হওয়ার আশঙ্কা থাকে। তাই আমরা ছাত্রলীগের ১০ নেতাকর্মী (লবণ তুলার সরঞ্জাম) নিয়ে হাজির হই। তাতে চাষী অনেক খুশি হন, আমরা বিনা পারিশ্রমিকে তার লবণ তুলে দেব বলে।

তার জমির লবণ তুলে দিলাম, তার মুখের হাসি আমাদের অন্যরকম আনন্দ দিয়েছে। এর আগে করোনা পরিস্থিতি মোকাবেলায় হ্যান্ড স্যানিটাইজার, মাইকিং করে জনসচেতনতা সৃষ্টি, ফ্রি মুখের মাস্ক ও হ্যান্ড গ্লাবস বিতরণ, লিফলেট বিলিসহ অসহায় ও মধ্যভিত্তদের মাঝে খাবার বিতরণ করেন ছাত্রলীগ নেতা আসাদুজ্জামান নিরুর নেতৃত্বে নেতাকর্মীরা।

  •  
  •  
  •  
  •  
  •   
  •  
  •