ডেস্ক নিউজ:

নিকগঞ্জের সিংগাইরে তাবলিগ জামাতের ১১ জন মুসুল্লির নমুনা পরীক্ষার পর তিনজনের শরীরে করোনাভাইরাস শনাক্ত হয়েছে।

মঙ্গলবার দুপুরে সিভিল সার্জন ডা. আনোয়ারুল আমিন আখন্দ এ তথ্য নিশ্চিত করেছেন। ওই তিনজনকে সিংগাইর উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের আইসোলেশনের রাখার প্রস্তুতি চলছে। আক্রান্ত তিন মুসুল্লি ফরিদপুর জেলার বাসিন্দা।

সিভিল সার্জন জানান, গত ২৪ মার্চ ফরিদপুর থেকে মানিকগঞ্জের সিংগাইরের বাইতুল মামুর ও মারকাযুল মা আরিফ ওয়াদ-দা ওয়াহ মাদরাসায় তাবলীগ জামাতে এসেছিলেন ১২ সদস্যের একটি দল। এদের মধ্যে ৬০ বছরের এক বৃদ্ধের শরীরে করোনার উপসর্গ দেখা দিলে তিনি আইইডিসিআরে পরীক্ষা করান। পরীক্ষায় তার করোনাভাইরাস ধরা পড়ে।

এর প্রেক্ষিতে রোববার ওই মাদরাসাসহ পুরো সিংগাইর পৌরসভা লকডাউন করে দেয় প্রশাসন। সেই সঙ্গে তাবলীগ জামাতের ১১ সদস্যকে ওই মাদরাসায় হোম কোয়ারেন্টাইনে রাখা হয়। একই সঙ্গে জামাতে যোগ দেয়া স্থানীয় ৬ জনকে এবং তাদের পরিবারের সদস্যদের হোম কোয়ারেন্টাইনে রাখা হয়। এর আগে রোববার বিকেলে আইইডিসিআরের একটি প্রতিনিধি দল সিংগাইর থেকে তাদের নমুনা সংগ্রহ করে।

  •  
  •  
  •  
  •  
  •   
  •  
  •