কুতুবদিয়া প্রতিনিধি:

কুতুবদিয়ায় ক্রিকেট খেলার জের ধরে দুই পক্ষের মারামারি হয়েছে। এতে ৫ জন আহত হয়েছে। আহতদের হাসপাতালে নেয়ার পর উন্নত চিকিৎসার জন্য জেলা সদর হাসপাতালে রেফার করা হয়েছে।

শুক্রবার ( ২৭ মার্চ) সকাল সাড়ে ১১ টার দিকে বড়ঘোপ মুরালিয়া গ্রামে হামলার ঘটনা ঘটে।

প্রত্যক্ষদর্শীরা জানায়, শুক্রবার সকালে আলী আকবর ডেইল শহরিয়া পাড়ার করিম দাদের পুত্র মনজুর আলম ফিশিং বোটের মালামাল নিয়ে মুরালিয় গ্রামে গেলে কতিপয় লোক পূর্বে একটি ক্রিকেট খেলায় তর্কাতর্কির জের ধরে তার উপর হামলা করে বলে মনজুর আলম জানান।

এ খবর এলাকায় পৌঁছলে মনজুর আলমের আত্মীয় স্বজনেরা ছুটে আসে। এক পর্যায়ে উভয় পক্ষে মারামারি শুরু হয়।

এতে শহরিয়া গ্রামের শামসুল আলমের পুত্র পারভেজ (২০), একই গ্রামের জালাল আহমদের পুত্র আব্দুল্লাহ(২২), তার ভাই রহমত উল্লাহ (৩৭), করিম দাঁদের পুত্র মনজুর আলম (৪৯) ও মুরালিয়া গ্রামের নাছির উদ্দিনের পুত্র মো: সাকিব (১৭) গুরুতর আহত হয়। আহতদের উদ্ধার করে উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নেয়া হয়। আহতদের অবস্থা গুরুতর হওয়ায় সবাইকে জেলা সদর হাসপাতালে রেফার করেন দায়িত্বপ্রাপ্ত ডা: গোলাম মারুফ।

কুতুবদিয়া থানার অফিসার ইন্চার্জ (ওসি) মোহাম্মদ দিদারুল ফেরদাউস জানান, তুচ্ছ বিষয়ের জের ধরে মুরালিয়া গ্রামের সংঘর্ষের খবর পেয়ে পুলিশ ঘটনাস্থলে ছুটে যায়। এসময় গ্রামবাসিসহ অন্তত: সহস্রাধিক মানুষ জড়ো হলে পুলিশ তাদের ছত্রভঙ্গ করে দিয়ে আহতদের হাসপাতালে নেয়ার সহায়তা করে।

  •  
  •  
  •  
  •  
  •   
  •  
  •