মো. নুরুল করিম আরমান, লামা
বিশ্ব ব্যাপী ছড়ানো প্রাণঘাতী নভেল করোনা ভাইরাসে এবার বান্দরবানের লামা উপজেলাকে ‘লকডাউন’ ঘোষনা করেছে প্রশাসন। মঙ্গলবার বিকেল থেকে অনির্দিষ্ট কালের জন্য নির্বাহী অফিসার নূর-এ-জান্নাত রুমি উপজেলাকে লক ডাউনের ঘোষনা দেন। করোনা ভাইরাসের সংক্রমণ ঠেকাতে উপজেলা করোনা ভাইরাস সংক্রমণ প্রতিরোধ কমিটির জরুরী সভার সিদ্ধান্ত ক্রমে এ উদ্যোগ নেয়া হয়েছে। বিষয়টি বহুল প্রচারের জন্য মাইকিংসহ সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম ফেইসবুক ফেইজ থেকেও পোষ্ট করে উপজেলা ও থানা প্রশাসন।

জানা যায়, সম্প্রতি ২৪জন বিদেশ ফেরত প্রবাসী দেশে ফিরে উপজেলার বিভিন্ন এলাকায় অবস্থান করছেন। এদেরকে হোম কোয়ারেন্টাইনে থাকার নির্দেশ দেয়ো হয়েছিল। কিন্তু তারা কোয়ারেন্টাইন মানছেনা। ইতিমধ্যে হোম কোয়ারেন্টাইন পৌরসভা এলাকার ছোট নুনারবিল পাড়ার মেমং মার্মা নামের এক মালয়েশিয়া ফেরত প্রবাসীকে ৫ হাজার টাকা জরিমানাও করা হয়। এদিকে উপজেলা প্রশাসনের এক জরুরী বিজ্ঞপ্তিতে উল্লেখ করা হয়, উপজেলার সাথে সংযোগ প্রবেশ পথে কক্সবাজার জেলার রামু ও চকরিয়া উপজেলাসহ সীমান্ত বর্তী বেশ কিছু সড়কপথ অরক্ষিত রয়েছে। এ উপজেলা পার্শ্ববর্তী উপজেলার সাথে এ সকল অরক্ষিত প্রবেশ পথ লাগোয়া থাকায় জন যাতায়াত অবারিত হওয়ার কারণে করোনা ভাইরাস দ্রুত সংক্রমনের সম্ভাবনা রয়েছে। ইতিসমধ্যে পার্শ্ববর্তী কক্সবাজার জেলায় করোনা ভাইরাসে আক্রান্ত হয়ে একজন মারাও যান।

এ বিষয়ে স্বাস্থ্য কর্মকর্তা ডা. মোহাম্মদুল হক বলেন, এ পর্যন্ত উপজেলায় বিদেশ ফেরত ২৪ জন কোয়ারেন্টাইনে। এদেরকে সার্বক্ষনিক মনিটরিং করা হচ্ছে।

উপজেলাকে ‘লকডাউন’ ঘোষনার সত্যতা নিশ্চিত করে নির্বাহী অফিসার নূর-এ-জান্নাত রুমি বলেন, যেহেতু করোনা ভাইরাস সংক্রমনের সম্ভাবনা রয়েছে, সেহেতু লামা পৌরসভা, ৭টি ইউনিয়ন ও সকল ওয়ার্ড পর্যায়ের জনগনকে পরবর্তী নির্দেশ না দেয়া পর্যন্ত নিজ গৃহে সার্বক্ষনিক অবস্থান করাসহ সচেতন থাকার জন্য অনুরোধ করা হলো।

  •  
  •  
  •  
  •  
  •   
  •  
  •