মোঃ নিজাম উদ্দিন, চকরিয়া:
চকরিয়া উপজেলার খুটাখালীতে মাটি ভরাট করে খাল দখল নিয়ে সোমবার  কক্সবাজার নিউজ ডটকম (সিবিএন) ও দৈনিক ইনানী পত্রিকায় সংবাদ প্রকাশিত হয়।
এর পরিপ্রেক্ষিতে সোমবার সকালে উপজেলা সহকারী কমিশনার (ভূমি) মোঃ তানভীর হোসেন’এর নেতৃত্বে অবৈধ দখলের বিরুদ্ধে অভিযান চালানো হয়। সাথে ছিলেন ফুলছড়ী রেঞ্জ কর্মকর্তা ছৈয়দ আবু জাকারিয়া, বিট কর্মকর্তা আকরাম হোসেন, পার্শ্ববর্তী এলাকার ইউপি সদস্য আবদুস শুক্কুরসহ থানা পুলিশের একটি দল।
অভিযানকালে জড়িতদের কাউকে ঘটনাস্থলে পাওয়া যায়নি। এসময় ফুলছড়ী ছড়াখালের উপর নির্মিত বেশকিছু ঘেরা বেড়া ভেঙে দেওয়া হয়েছে। এবং খালে ভরাট করা সমস্ত মাটিগুলো অপসারণ করতে মেম্বার আবদুস শুক্কুরকে নির্দেশ দেওয়া হয়।
পরে ফুলছড়ি রেঞ্জ আওতাধীন ৯নং ওয়ার্ড নতুন পাড়া এলাকায় অভিযান চালান। ওসময় বনভূমিতে নির্মিত একটি অবৈধ ঘর উচ্ছেদ করা হয়। পাহাড় কাটা ও বনভূমির অবৈধ দখলে জড়িতরা পালিয়ে যাওয়ায় কাউকে আটক করা সম্ভব হয়নি। তবে তাদের বিরুদ্ধে পরবর্তীতে আইনগত ব্যবস্থা নেওয়া হবে বলে সংশ্লিষ্ট সুত্রে জানা যায়।
এ ব্যাপারে চকরিয়া উপজেলা সহকারী কমিশনার (ভূমি) মোঃ তানভির হোসেন বলেন, খুটাখালীর ফুলছড়ী ছড়াখালে মাটি ভরাট ও নতুন পাড়ার বনভূমিতে অবৈধ ঘর নির্মাণ করছিল দখলবাজরা। এ খবর পেয়ে সোমবার সকালে অভিযান চালানো হয়। অভিযানে নতুন পাড়ায় বনভূমির অবৈধ ঘর ও ফুলছড়ি ছড়াখালের উপর ঘেরা বেড়া উচ্ছেদ করা হয়েছে। এ ছড়াখাল থেকে সমস্ত মাটি অপসারণ করতে পার্শ্ববর্তী এলাকার মেম্বারকে নির্দেশ দেওয়া হয়েছে।

  •  
  •  
  •  
  •  
  •   
  •  
  •