ফারুক আহমদ, উখিয়া :

উখিয়ার মরিচ্যা স্টেশনের একটি পোল্ট্রি খামারি দোকানের ম্যানেজার মোঃ রায়হান উদ্দিন (৩৪) নামক এক ব্যক্তি দুদিন ধরে নিখোঁজ রয়েছে। তবে পরিবারের দাবি তাকে পরিকল্পিতভাবে অপহরণ করে গুম রাখা হয়েছে।
এ ব্যাপারে উখিয়া থানায় সাধারণ ডায়েরি লিপিবদ্ধ করেছে নিখোঁজের স্ত্রী জোসনা আক্তার। নিখোঁজের দুদিনেও হদিস না পাওয়ায় স্ত্রী, সন্তান সহ পুরো পরিবার উৎকন্ঠিত। তারা নিখোঁজ রায়হান কে দ্রুত উদ্ধার করার জন্য সংশ্লিষ্ট আইনশৃঙ্খলা বাহিনীর নিকট জোর দাবি জানিয়েছেন।
থানায় লিখিত ডায়েরিতে উল্লেখ করা হয় মৃত কাদির হোসেনের ছেলে মোঃ রায়হান উদ্দিন গত রবিবার সকালে মামলা সংক্রান্ত বিষয়ে কক্সবাজার আদালতে যান। একই সাথে বড় ভাই ওসমান ছিল।
স্ত্রী জোসনা আক্তার জানান আদালতে যাবার পথে সকালে মোবাইল ফোনে নম্বর ০১৮৮৫৩৬০৫৩৮ কথা হলেও বেলা ২ টার পর শত চেষ্টা করো ফোন বন্ধ থাকায় স্বামীর সাথে আর কথা বলা সম্ভব হয়নি।
পারিবারিক সূত্রে জানা গেছে খুনিয়াপালং ইউনিয়ন প্যাঁচার দ্বীপ গ্রামে তার বাড়ি হলেও কয়েক বছর ধরে তিনি ও তার পরিবার স্থায়ীভাবে উখিয়ার হলদিয়া পালং ইউনিয়নের পশ্চিম মরিচ্যা গ্রামে বসবাস করে আসছে। মরিচ্যা বাজার স্টেশনে নজির সওদাগরের মালিকানাধীন জান্নাত পোল্ট্রি খামার নামক দোকানে রায়হান ম্যানেজার হিসেবে দীর্ঘদিন ধরে চাকুরীরত আছেন।
গ্রামবাসীর সাথে কথা বলে জানা গেছে, জমি সংক্রান্ত বিষয়ে নিখোঁজ রায়হান উদ্দি বাদী হয়ে কক্সবাজার সহকারি জজ আদালতে ধেছুয়া পালং গ্রামের জনৈক ইসলাম চৌধুরী গংয়ের বিরুদ্ধে মামলা দায়ের করেন। যার মামলা নম্বর অপর ১৪২ /১৫।
দোকানের মালিক জানান, মামলার হাজিরা দিন ধার্য্য আছে কথা বলে রায়হান সকালে কক্সবাজার আদালতে যান। সাথে বড় ভাই উসমান ছিল।
নিখোঁজের স্ত্রী অভিযোগ করে বলেন আপন দুই সহোদর মামলা সংক্রান্ত বিষয়ে আদালতে গেলেও বড় ভাই বাড়িতে চলে আসলেও ছোট ভাইয়ের নিখোঁজ নিয়ে তার সন্দেহ হয়েছে। বর্তমানে ব্যবহৃত মোবাইল নম্বর বন্ধ রয়েছে। তার দাবি পরিকল্পিত ভাবে স্বামীকে অপহরণ করে আত্মগোপনে রাখা হয়েছে।
এদিকে পরিবারের পক্ষে নিখোঁজের বিষয়টি জেলা ডিবি পুলিশ অভিহিত করা হয়েছে। ডিবি পুলিশ মোবাইল ট্রাকিংয়ের মাধ্যমে নিখোজ রায়হানকে উদ্ধারের চেষ্টা চালিয়ে যাচ্ছেন বলে জানান।

  •  
  •  
  •  
  •  
  •   
  •  
  •