সংবাদদাতা :
কক্সবাজারের কুতুবদিয়া উপজেলায় লেমশীখালী ইউনিয়নের দরবার রোডে নির্মিত ব্রীজে লবণাক্ত পানি ব্যবহার করে পাইলিং করার অভিযোগ পাওয়া গিয়েছে। এমন কি পাইলিং কাজে নিম্নমানের কাজের গুরুতর অভিযোগ উঠেছে। ইতি পূর্বে দেখা গিয়েছে পূর্বে নির্মিত কয়েক কোটি টাকার ব্রীজ মাত্র ২০-২২ বছরে জরাজীর্ণ হয়ে গিয়েছে নিম্নমানের কাজের জন্য।ব্রীজ নির্মাণে আবার লবণাক্ত পানি ব্যবহার এবং নিম্নমানের পাইলিং করার কারণে ব্রীজের দীর্ঘ স্থায়িত্ব নিয়ে স্থানীয়দের ক্ষোভ রয়েছে।

স্থানীয়দের অভিযোগ, সরকারের কোটি কোটি টাকার উন্নয়ন কাজ একদিকে যেমন জলে যাচ্ছে,অন্যদিকে দূর্নীতিবাজদের পকেটে কোটি কোটি টাকা যাচ্ছে।সরকারের উন্নয়নকে প্রশ্নবিদ্ধ করছে এমন কাজের জন্য।সরকারি কাজের বরাদ্দকৃত কোটি টাকার প্রকল্পে বাজেট কত এবং সময় নির্ধারিত করে সাইন বোর্ড দেওয়া হয়।কিন্তু উক্ত ব্রীজে বাজেট এবং সময় নিয়ে এরকম কোন সাইন বোর্ড দেওয়া হয়নি। বিভিন্ন তথ্যসূত্র মতে উক্ত ব্রীজের বাজেট প্রায় ১০-১৫ কোটি টাকা।

স্থানীয়দের অভিযোগ সরকারি প্রকৌশলীর সাথে যোগসাজশে এমন দূর্নীতি হচ্ছে। অথচ এখন পাইলিং এর কাজ অর্ধেক শেষ। স্থানীয়দের আবেদন,সরকারের উন্নয়নকে প্রশ্নবিদ্ধ না করার জন্য প্রশাসনের হস্তক্ষেপ কামনা করছে।

  •  
  •  
  •  
  •  
  •   
  •  
  •