সিবিএন ডেস্ক

করোনা ভাইরাসের বিস্তার ঠেকাতে বেশ কয়েকটি দেশের নাগরিক ও বাসিন্দাদের ভ্রমণের ওপর সাময়িক নিষেধাজ্ঞা আরোপ করেছে সৌদি আরব। বৃহস্পতিবার (১২ মার্চ) ভ্রমণ নিষেধাজ্ঞার আওতায় রয়েছে প্রায় সমগ্র ইউরোপ ও এশিয়ার ১২টি দেশ। এর পাশাপাশি কয়েকটি দেশের সঙ্গে ফ্লাইট যোগাযোগও বাতিলের কথা জানিয়েছে সৌদির রাষ্ট্রীয় বার্তা সংস্থা এসপিএ।

সৌদি আরবে করোনা ভাইরাসে আক্রান্তের সংখ্যা ৪৫ জনে পৌঁছেছে। বুধবার রাতে দেশটির স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয় জানিয়েছে সম্প্রতি আক্রান্তদের মধ্যে ইরাক থেকে আসা এক নারী ও পুরুষ এবং ১২ বছর বয়সী এক মেয়ে শিশু রয়েছে। ধারণা করা হচ্ছে শিশুটি তার দাদীর কাছ থেকে সংক্রমিত হয়েছে। তার দাদী সম্প্রতি ইরান থেকে ফিরেছেন। এছাড়া বাকি সংক্রমিতদের মধ্যে ২১ জনের মিসর সংশ্লিষ্টতা রয়েছে।

এর আগে গত সোমবার করোনা ভাইরাস কবলিত বেশ কয়েকটি দেশের নাগরিকদের সৌদি ভ্রমণের ওপর নিষেধাজ্ঞা আরোপ করা হয়। বৃহস্পতিবার ওই নিষেদধাজ্ঞার আওতা বাড়ানো হয়েছে বলে সৌদি স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের সূত্র উদ্ধৃত করে জানিয়েছে এসপিএ। ফলে বর্তমানে সৌদি আরবের ভ্রমণ নিষেধাজ্ঞার আওতায় পড়া দেশগুলোর মধ্যে রয়েছে ইউরোপীয় ইউনিয়নভুক্ত দেশসমূহ, সুইজারল্যান্ড, ভারত, পাকিস্তান, শ্রীলঙ্কা, ফিলিপাইন, সুদান, ইথিওপিয়া, দক্ষিণ সুদান, ইরিত্রিয়া, কেনিয়া, দিজুবুতি ও সোমালিয়া।

তবে সৌদি আরবে ভ্রমণ নিষেধাজ্ঞার আওতামুক্ত থাকবে ফিলিপাইন ও ভারতের স্বাস্থ্যকর্মীরা। এছাড়া সমুদ্র পরিবহন ও বাণিজ্য সফরের ক্ষেত্রে বিশেষ সতর্কতামূলক ব্যবস্থা নিতে হবে।

উল্লেখ্য, সৌদি আরবের এমন সিদ্ধান্তের আগেই ভারত ও যুক্তরাষ্ট্রসহ বেশ কয়েকটি দেশ ভ্রমণ নিষেধাজ্ঞা আরোপ করেছে। দুই সপ্তাহে ভাইরাসটি চীনের বাইরে ১৩ গুণ বৃদ্ধি পাওয়ার প্রেক্ষাপটে বুধবার পৃথিবীব্যাপী মহামারি ঘোষণা করেছে বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা (ডব্লিউএইচও)।

  •  
  •  
  •  
  •  
  •   
  •  
  •