ইমাম খাইর, সিবিএন  
দীর্ঘদিন পরে অনুষ্ঠিত হচ্ছে কক্সবাজার পৌরসভার ৪ নং ওয়ার্ডের ঐতিহ্যবাহী জনবহুল এলাকা পেশকার পাড়া সমাজ কমিটির নির্বাচন।
স্থানীয় আবুজর আল গিফারী স্কুলে সকাল ৯টা থেকে ভোট গ্রহণ শুরু হয়েছে।
বিকাল ৪ টা পর্যন্ত ভোট গ্রহণ হবে।
দীর্ঘদিন পরে গণতান্ত্র চর্চার সুযোগ পেয়ে বৃহত্তর পেশকারপাড়ার সর্বশ্রেণীর মানুষের মাঝে ব্যাপক উৎসাহ লক্ষ্য করা গেছে। সকাল থেকে লাইন ধরে ভোট দিতে দেখা গেছে। সকাল ১০ টা পর্যন্ত দুইটি বুথে ১০০ ভোট পড়েছে। ভোট গ্রহণের সময় বিকাল ৪ টা পর্যন্ত হলেও বেলা ১ টা নাগাদ অধিকাংশ ভোট নেয়া সম্পন্ন হতে পারে।
গণতান্ত্রিক পন্থায় নির্বাচন, সত্যি সর্বসাধারণকে উৎসাহিত করেছে। নির্বাচনের আমেজ দেখছে স্থানীয় বাজারের ব্যবসায়ীরাও। নির্বাচনকে সুষ্ঠু ও নিরপেক্ষ করতে পুলিশের বেশ কিছু সদস্য দায়িত্ব পালন করছে।
মোট ৯ টি পদের বিপরীতে ২৪ জন প্রার্থী প্রতিদ্বন্দ্বিতা করছে। সমাজ কমিটির তালিকাভুক্ত ৩২৭ ভোটাররাই তাদের ভোটাধিকার প্রয়োগ করবে। নির্বাচিত করবে সমাজ পরিচালনার কর্ণধারদের।
কোন ধরণের প্রভাব নয়, যার মাধ্যমে এলাকার উন্নয়ন হবে এমন নেতৃত্ব প্রত্যাশা সবার।
সভাপতি প্রার্থী ফজল করিম সওদাগর নির্বাচনের পরিবেশে সন্তুষ্টি প্রকাশ করেছেন।
তিনি বলেন, খুব সুন্দরভাবে ভোট গ্রহণ হচ্ছে। কোন বিশৃঙ্খলা নেই। সবাই উৎসবের সাথে ভোট দিচ্ছে। সকালে ভোট কেন্দ্র পরিদর্শন করেন কক্সবাজারের বিশিষ্ট রাজনীতিবিদ মোহাম্মদ ইসমাইল সিআইপি। পেশকারপাড়ার ইতিহাসে প্রথমবারের মতো গণতান্ত্রিক পন্থায় নেতৃত্ব নির্বাচনে প্রচুর আগ্রহ দেখা দিয়েছে। প্রার্থী, ভোটার, ভোট গ্রহণ কর্মকর্তা থেকে শুরু করে সবাই সন্তুষ্ট।
স্থানীয় বাসিন্দা খালেদ মাসুদ জানান, এলাকার সামাজিক কর্মকান্ড পরিচালনার জন্য তারা নেতৃত্ব নির্বাচন করছে।
উৎসবমুখর পরিবেশে নির্বাচনী কার্যক্রম পরিচালিত হয়েছে। স্থানীয় বাসিন্দা মীর আক্তার ভুট্টো জানান, এই নির্বাচনকে ঘিরে সবার মাঝে ব্যাপক উৎসাহ-উদ্দীপনা দেখা দিয়েছে। ভোটাররা পছন্দের প্রার্থীকে ভোট দিতে পারছে। কোন প্রভাব বিস্তার নেই। ভোটারদের মতামতের প্রতিফলন ঘটবে বলে  আশা তার।
যার মাধ্যমে এলাকার শান্তিশৃঙ্খলা বজায় থাকবে, পরিবেশের উন্নতি হবে, তাকেই নির্বাচিত করবে ভোটাররা-প্রত্যাশা সবার।
সমাজ কমিটির এই নির্বাচনকে অবাধ, সুষ্ঠু ও নিরপেক্ষভাবে সম্পন্ন করতে সবার সহযোগিতা কামনা করেছেন প্রধান নির্বাচন কমিশনার নুরুল আলম মাস্টার।

এদিকে, প্রথমবারের মতো পেশকার পাড়া সমাজ কমিটির এ নির্বাচনের জন্য ভোটার, নির্বাচন কমিশনসহ সংশ্লিষ্টদের ধন্যবাদ জানান স্থানীয় ওয়ার্ড কাউন্সিলর দিদারুল ইসলাম রুবেল। সোমবার দুপুরে ভোট কেন্দ্র পরিদর্শন শেষে সন্তোষ প্রকাশ করে তিনি বলেন, গণতান্ত্রিক এই নির্বাচনের মাধ্যমে সঠিক নেতৃত্ব নির্বাচন হবে বলে আশা করছি। সমাজের উন্নয়নে বিজয়ী এবং বিজিত সবাইকে সম্মিলিতভাবে কাজ করতে হবে।

  •  
  •  
  •  
  •  
  •   
  •  
  •