এম.মনছুর আলম, চকরিয়া :
চকরিয়ায় উপকূলীয় বদরখালীতে বিদ্যুতের শর্ট সার্কিটের অগ্নিকান্ডে দুটি বসতঘর পুড়ে ছাই হয়ে গেছে। এতে অগ্নিকান্ডে দুই বসতঘরে অন্তত বিশ লক্ষ টাকার ক্ষয়ক্ষতি হয়েছে বলে ক্ষতিগ্রস্ত পরিবার দাবি করেছে।
মঙ্গলবার বিকেল ৩ টার দিকে উপজেলার উপকূলীয় বদরখালী ইউনিয়নের ৯নম্বর ওয়ার্ডের আমিরখালী পাড়া এলাকায় এ অগ্নিকান্ডের ঘটনা ঘটে। বদরখালী ইউপি চেয়ারম্যান ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করে বলেন, মঙ্গলবার বিকেল ৩টার ইউনিয়নের ৯নম্বর ওয়ার্ডের আমিরখালী পাড়া এলাকার নাদের হোছাইনের ছেলে রমিজ উদ্দিন ও তার ভাই আব্দুল করিমের বসতঘরে আকস্মিক ভাবে বৈদ্যুতিক শর্ট সার্কিট হয়। এতে মুহুর্ত্বের মধ্যে বাড়িতে আগুনের লেলিহান শিখা বাড়ির চতুর পাশে ছড়িয়ে পড়লে ভয়াবহ আগুনে দুটি বসতঘর মুহুর্তের মধ্যে পুড়ে ছাই হয়ে যায়। তিনি আরও বলেন, বাড়িতে থাকা বিভিন্ন আসবাবপত্র, নগদ টাকা ও প্রয়োজনীয় কাগজপত্রসহ মালামাল পুড়ে যায়। পুড়ে যাওয়া বসতঘর থেকে কোন প্রকার মালামাল বাাহির করতে পারেনি ক্ষতিগ্রস্থ পরিবার। স্থানীয় লোকজন আগুন নিয়ন্ত্রণে শত চেষ্টা করেও ব্যর্থ হয়।
এদিকে অগ্নিকান্ডের খবর পেয়ে দ্রুত ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেছেন উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা (ইউএনও) নুরুদ্দীন মুহাম্মদ শিবলী নোমান। এসময় তিনি বদরখালী ইউপি চেয়ারম্যান খাইরুল বশরকে মাননীয় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার বিশেষ বরাদ্দ আশ্রয়ন প্রকল্প থেকে দুটি নতুন ঘর নির্মাণ করে দেয়ার প্রতিশ্রুতি দেন। তা অতি দ্রুত সময়ে ক্ষতিগ্রস্ত পরিবারকে নির্মাণ করে দেয়া হবে বলে জানান। অগ্নিকাণ্ডের ঘটনাস্থল পরিদর্শের সময় উপস্থিত ছিলেন, বদরখালী ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান খায়রুল বশর, ইউনিয়ন আওয়ামীলীগের সভাপতি ও সাবেক ইউপি চেয়ারম্যান নুরে হোছাইন আরিফ, বদরখালী ইউনিয়ন আওয়ামীলীগের সাধারণ সম্পাদক এ কে ভুট্টো সিকদার, সাবেক এম ইউ পি আহমদ উল্লাহ, হাবিবা সরকারী প্রাথমিক বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক মাষ্টার সিরাজুল করিমসহ স্থানীয় ব্যক্তিবর্গ উপস্থিত ছিলেন। তাৎক্ষণিক ভাবে অগ্নিকাণ্ডে ক্ষতিগ্রস্ত পরিবারকে বদরখালী ইউনিয়ন আওয়ামীলীগের সভাপতি নুরে হোছাইন আরিফ ও সাধারণ সম্পাদক এ কে ভুট্টো সিকদার নগদ আর্থিক সহায়তা প্রদান করেন।

  •  
  •  
  •  
  •  
  •   
  •  
  •