এ কে এম ইকবাল ফারুক, চকরিয়া
চকরিয়ায় বিদ্যুতের শর্টসার্কিটের আগুনে পুড়ে গেছে দুইটি বসতঘর ও তিনটি দোকান। এতে কোটি টাকার ক্ষয়ক্ষতি হয়েছে বলে জানিয়েছেন পুড়ে যাওয়া বাড়ির মালিক ও ক্ষতিগ্রস্থ ব্যবসায়ীরা। আগুন লাগার সাথে সাথেই তার লেলিহান শিখায় মুহুর্তে মধ্যেই এসব বসতবাড়ি ও দোকান সমুহ পড়ে যায়। পরে দমকল বাহিনীর কর্মীরা ঘটনাস্থলে গিয়ে আগুন নিভিয়ে ফেলেন।

শনিবার (২৯ র্ফেরুয়ারি) ভোররাত ৩টার দিকে উপজেলার সাহারবিল ইউনিয়নের ৪ নম্বর ওয়ার্ডের শীলপাড়া এলাকায় এ অগ্নিকান্ডের ঘটনা ঘটে। ক্ষতিগ্রস্ত পরিবারগুলোর মধ্যে রয়েছে ওই এলাকার বাসিন্দা বিধান শীল ও ডাক্তার বিকাশ শীলের বসতঘর এবং হৃদয় শীলের তিনটি দোকান।

ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করে স্থানীয় সাহারবিল ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান মহসিন বাবুল বলেন, শনিবার ভোররাত ৩টার দিকে ডাক্তার বিধান শীলের বাড়িতে বৈদ্যুতিক শর্ট সার্কিট থেকে আগুনের সূত্রপাত হলে মুহুর্তের মধ্যেই আগুনের লেলিহান শিখা পার্শ্ববর্তী বিধান শীলের বসতবাড়ি ও হৃদয় শীলের দোকানে ছড়িয়ে পড়ে। অগ্নিকান্ডের খবর পেয়ে চকরিয়া পৌর সদর থেকে দমকল বাহিনীর লোকজন ঘটনাস্থলে গিয়ে আগুন নিয়ন্ত্রনে আনলেও ততক্ষণে দুইটি বসতঘর ও তিনটি দোকান পুড়ে ছাই হয়ে যায়। তিনি আরো বলেন, সকালে আমি ঘটনাস্থল পরিদর্শন করে বিষয়টি উপজেলা প্রশাসনকে অবহিত করেছি। ক্ষতিগ্রস্থ পরিবারগুলোকে ইউনিয়ন পরিষদ ও উপজেলা প্রশাসনের পক্ষ থেকে সহযোগিতা করা হবে বলেও জানান তিনি।

চকরিয়া ফায়ার সার্ভিস ও সিভিল ডিফেন্সের স্টেশন অফিসার মো. সাইফুল হাসান বলেন, সাহারবিল ইউনিয়নের ৪ নম্বর ওয়ার্ডের শীলপাড়া এলাকায় বসতবাড়ির বৈদ্যুতিক শর্ট সার্কিট থেকে আগুন লাগার খবর পেয়ে দমকল বাহিনীর লোকজন দ্রুত ঘটনাস্থলে গিয়ে আগুন নিয়ন্ত্রণে নিয়ে আসে। তবে এরআগে দুইটি বসতবাড়ি ও তিনটি দোকান আগুনে পুড়ে যায়। অগ্নিকান্ডে কি পরিমাণ ক্ষয়ক্ষতি হয়েছে তা তদন্ত করে দেখতে হবে বলেও জানান তিনি।

  •  
  •  
  •  
  •  
  •   
  •  
  •