নিজস্ব প্রতিবেদক
মহেশখালী থেকে পৃথক অভিযানে মালয়েশিয়াগামী ১৬ রোহিঙ্গা আটক করা হয়েছে।
বৃহস্পতিবার রাত ১০টার দিকে মহেশখালী চ্যানেলে এ অভিযান চালানো হয়।
পরে তাদেরকে রোহিঙ্গা ক্যাম্পে ফেরত পাঠিয়েছে স্থানীয় প্রশাসন। এতে জড়িত সন্দেহে একজনকে আটক করেছে পুলিশ।
জানা গেছে, কক্সবাজার-মহেশখালী নৌরুটে সন্ধ্যার পর থেকে কিছুক্ষণ পর পর কাঠের তৈরি যাত্রীবাহী বোট যাতায়াত করে। মহেশখালী উপজেলা নির্বাহী অফিসার জামিরুল ইসলামের কাছে তথ্য ছিলো, এ রকম ট্রলারে করে কক্সবাজার ঘাট থেকে ট্রলারযোগে মহেশখালী প্রবেশ করছিল বেশকিছু রোহিঙ্গা।
পরে মহেশখালী থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) প্রভাষ চন্দ্র ধরের নেতৃত্বে মহেশখালী কক্সবাজার নৌ-চ্যানেলসহ বিভিন্ন স্থানে অভিযান চালায় পুলিশ।
এ সময় পুলিশ অন্তত ১০ রোহিঙ্গা নারী-পুরুষকে উদ্ধার করে।
তাছাড়া মহেশখালী পৌর মেয়র মকছুদ মিয়া পৌর শহরের গোরকঘাটা বাজার এলাকা থেকে ৬ রোহিঙ্গা নারী-পুরুষকে উদ্ধার করে পুলিশে সোপর্দ করে।
অপরদিকে কক্সবাজার থেকে মহেশখালীর দিকে আসা রোহিঙ্গাবাহী একটি ট্রলারকে উল্টো দিকে ফিরিয়ে দেয়া হয়।
পুলিশ জানায়, সাগর পথে অবৈধভাবে মালয়েশিয়ায় পাচারের জন্য এসব রোহিঙ্গাকে একটি দালালচক্র কর্তৃক মহেশখালী দ্বীপে নিয়ে আসা হচ্ছিল। এ ঘটনায় দালাল সন্দেহে বাংলাদেশী এক যুবককে আটক করেছে পুলিশ।
উদ্ধার হওয়া রোহিঙ্গাদের উখিয়ার রোহিঙ্গা ক্যাম্পে পাঠানোর উদ্যোগ নেয়া হচ্ছে বলে পুলিশ জানিয়েছেন।
প্রসঙ্গত, গত কয়েকদিন ধরে দফায় দফায় মহেশখালীতে এভাবে জড়ো করা রোহিঙ্গাদের উদ্ধার করা হয়। এসব ঘটনায় একাধিক দালালকে গ্রেফতারসহ পুলিশ বাদি হয়ে মামলা করা হয়।

  •  
  •  
  •  
  •  
  •   
  •  
  •