সোয়েব সাঈদ, রামু
রামুতে দেড় মাসের ব্যবধানে জোয়ারিয়ানালা মোহাম্মদিয়া আরবিয়া হাফেজিয়া মাদ্রাসার ২ ছাত্র নিখোঁজ হয়েছে। এরা হলো, রামু উপজেলার কচ্ছপিয়া ইউনিয়নের পূর্ব নতুন তিতারপাড়া এলাকার মোবাশ্বের আহমদের ছেলে মো. মাঈনুদ্দিন (১১) ও জোয়ারিয়ানালা ইউনিয়নের চা-বাগান পাহাড়িয়া পাড়ার নুরুল আলমের ছেলে মো. এরশাদুর রহমান (১১)।

নিখোঁজ মো. মাঈনুদ্দিনের মাতা হোসনে আরা জানিয়েছেন, গত ১৯ ফেব্রুয়ারি বিকালে জোয়ারিয়ানালা পূর্ব নোনাছড়ি থেকে মাদ্রাসার উদ্দেশ্যে বের হয়। এর পর থেকে ছেলের সন্ধান পাওয়া যাচ্ছে না। শিশুটির গায়ের রঙ শ্যামলা, মুখমন্ডল গোলাকার, উচ্চতা আনুমানিক ৩ ফুট। এ ব্যাপারে তিনি রবিবার (২৩ ফেব্রুয়ারি) রামু থানায় সাধারণ ডায়েরি (নং ১১২৮) করেছেন। ছেলেটির সন্ধান পেলে তিনি তাঁর মুঠোফোনে (নং-০১৮৬১-০৭৭৯২২ অথবা ০১৮৪৩১৭০৮৭৩) যোগাযোগ করার অনুরোধ জানিয়েছেন।

নিখোঁজ অপর ছাত্র মো. এরশাদুর রহমানের বাবা নুরুল আলম জানিয়েছেন, গত ৫ জানুয়ারি মাগরিব এর নামাজ না পড়ে তার ছেলে মাদ্রাসা থেকে চলে যায়। এরপর থেকে তার সন্ধান পাওয়া যাচ্ছে না। শিশুটির গায়ের রঙ কালো, মুখমন্ডল গোলাকার, উচ্চতা আনুমানিক ৩ ফুট। এরশাদুর রহমানের সন্ধান পেলে মুঠোফোনে (নং ০১৮৯২-৪২৬৮১৮) যোগাযোগ করার জন্য অনুরোধ জানিয়েছেন তিনি। তিনি আরো জানান, ৭ মাস পূর্বে হার্ট এ্যাটাকে প্রাণ হারায় এরশাদের মাতা হামিদা বেগম। তাই মা হারা সন্তানের হদিস না পেয়ে তিনি দিশেহারা হয়ে পড়েছেন।

জোয়ারিয়ানালা পূর্ব নোনাছড়ি মুসলিম পাড়া মোহাম্মদিয়া আরবিয়া হাফেজিয়া মাদ্রাসার শিক্ষক মৌলানা রমজানুর রহমান মাদ্রাসার ছাত্র মাঈনুদ্দিন ও এরশাদের নিখোঁজ হওয়ার বিষয়টি স্বীকার করেছেন। ওই দুই ছাত্র ইতিপূর্বে অন্য প্রতিষ্ঠানেও অধ্যয়নরত ছিলো। এ মাদ্রাসায় পড়তে চাচ্ছে না, তাই হয়তে আপাতত অন্য কোথাও লুকিয়ে রয়েছে। এ মাদ্রাসায় তাদের মারধর করা হতো না। ২ ছাত্র নিখোঁজ এর বিষয়টি তিনি থানায় জানাননি বলে জানান।

  •  
  •  
  •  
  •  
  •   
  •  
  •