আগামী ২১ ফেব্রুয়ারীশুক্রবার বিকাল ৫টা থেকে ২২ফেব্রুয়ারী শনিবার সন্ধ্যা ৭টা পর্যন্ত কক্সবাজারের মহেশখালী উপজেলার ঐতিহাসিক শ্রী শ্রী আদিনাথ মন্দিরে শিব চতুর্দশী উপলক্ষে শিব দর্শন ও মেলা অনুষ্ঠিত হবে। উল্লেখ্য, আদিনাথ মন্দির বাংলাদেশের একমাত্র পাহাড়ি দ্বীপ মহেশখালী উপজেলার সিন্ধু নদীর তীরে মৈনাকপর্বতের চুড়ায় অবস্থিত। এখানে রয়েছে শ্রী শ্রী মহাদেবের এক অলৌকিক শিবলিঙ্গ, এর পাশাপাশি আছে নেপাল রাজ্যে থেকে আনা শ্রী শ্রী অষ্টভুজার (দুর্গামূর্তি) শ্বেতপাথর’র মুর্তি। পাহাড়ের উপর দৃশ্যমান জোড়া পুকুর, এছাড়া আরও রয়েছে মনোমুগ্ধকর প্রাকৃতিক দৃশ্য, যা একজন দর্শনার্থী ও ভ্রমণ প্রিয় মানুষকে দিতে পারে খুশির এক বিনোদন।

আদিনাথ দর্শনের পাশাপাশি আদিনাথ মেলা বসে যেখানে প্রতিদিন লক্ষ লক্ষ মানুষের সমাগম হয়। অনেক নিরাপত্তার মধ্য দিয়ে শিব দর্শন ও মেলা অনুষ্ঠিত হবে। মহেশখালী উপজেলা প্রশাশন দর্শনার্থীদের বিভিন্নভাবে সহায়তা দেয়ার জন্য সর্বদা প্রস্তুত থাকে। আমি মহেশখালী উপজেলার নির্বাহী অফিসার মোঃ জামিরুল ইসলাম স্যার সহকারী কমিশনার (ভূমি), মহেশখালী সুইচিং মং মারমা স্যার এবং ওসি মহেশখালী সুভাষ চন্দ্র স্যার ও ওসি তদন্ত বাবুল আজাদ স্যার’র নিকট প্রত্যাশা করি শ্রী শ্রী আদিনাথ মন্দিরে শিব চর্তুদশী উপলক্ষে শিব স্নান অনুষ্ঠানে প্রতি বছর লক্ষ লক্ষ ভক্তবৃন্দ আসে এর মধ্য বেশিরভাগ ভক্ত ৫০ ও ৬০ ওপরে বয়স দুই থেকে তিন কিলোমিটার আগে যানজটের কারনে গাড়ি বন্ধ করে দেওয়া হয়, তাই ওই দুই থেকে তিন কিলোমিটার যাওয়ার পথে কিছু অটোরিকশা ও টমটম দিলে অনেক ভক্তবৃন্দ ভালো করে যাওয়া- আশা করতে পারবেন।

এছাড়া প্রশাসনের উর্ধতন কর্তৃপক্ষের কাছে বিনীত অনুরোধ, কক্সবাজার ৬নংঘাট, গোরকঘাটা ঘাট,আদিনাথ ঘাট ও চৌফলদন্ডী ঘাটে আইন শৃঙ্খলা বজায় রাখার জন্য তিনস্থরের নিরাপত্তা বজায় রাখার অনুরোধ করছি।

তাছাড়া অনেক দর্শনার্থী রাতের বেলা বাকখালী দিয়ে যাতায়াত করবেন, তাই পানি পথের মাঝখানে ইন্ডিকেটর বাতির ব্যবস্থা করলে বড় ধরনের দুর্ঘটনা এড়ানো যাবে।

নিবেদক
বিজয় দে
গোরকঘাটা হাসপাতাল সড়ক
০৪ ওয়ার্ড মহেশখালী পৌরসভা
মহেশখালী, কক্সবাজার

  •  
  •  
  •  
  •   
  •  
  •  
  •  
  •