প্রেস বিজ্ঞপ্তি
উপমহাদেশের ঐতিহ্যবাহী ইসলামী ছাত্র সংগঠন বাংলাদেশ ইসলামী ছাত্রসমাজের কেন্দ্রীয় সিনিয়র সহ-সভাপতি নির্বাচিত হয়েছেন, কক্সবাজারের কৃতি সন্তান, মজলুম ছাত্রনেতা, লেখক ও সাহিত্যিক হাফেজ মুহাম্মদ আবুল মঞ্জুর। ১৩ ফেব্রুয়ারি জাতীয় প্রেস ক্লাবের ভিআইপি লাউঞ্জে ইসলামী ছাত্রসমাজের মজলিসে শুরা ও উপদেষ্টা পরিষদের যৌথ অধিবেশনে নবগঠিত কেন্দ্রীয় কর্মপরিষদে তাকে সিনিয়র সহ-সভাপতি পদে নির্বাচিত করা হয়। তিনি ইতিপূর্বে এক মেয়াদে কেন্দ্রীয় সহ-সভাপতি হিসেবে কৃতিত্বের সাথে দায়িত্ব পালন করেন।
সাংগঠনিক অভিভাবক, বাংলাদেশ নেজামে ইসলাম পার্টির আমীর আল্লামা সরওয়ার কামাল আজিজীর সভাপতিত্বে, ইসলামী ছাত্রসমাজের সদ্য সাবেক সভাপতি আবদুল্লাহ মাসউদ খানের সসঞ্চালনায় অনুষ্ঠিত যৌথ অধিবেশনে গঠিত নতুন কমিটিতে সভাপতি নির্বাচিত হয়েছেন,বিদায়ী কমিটির মহাসচিব আতিকুর রহমান সিদ্দিকি, মহাসচিব নির্বকচিত হয়েছেন এহতেশামুল হক সাখী।
এ যৌথ অধিবেশনে মজলিসে শুরা ও উপদেষ্টা পরিষদ সদস্যদের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন, বাংলাদেশ ইসলামী ছাত্রসমাজের সাবেক কেন্দ্রীয় সভাপতি ও নেজামে ইসলাম পার্টির সিনিয়র নায়েবে আমীর মাওলানা আবদুল মাজেদ আতহারী, নায়েবে আমীর আবদুর রহমান চৌধুরী, ইসলামী ছাত্রসমাজের সাবেক কেন্দ্রীয় সভাপতি ও পার্টির নায়েবে আমীর মাওলানা আবদুল খালেক নেজামী, মহাসচিব মাওলানা মুসা বিন ইযহার, যুগ্ম মহাসচিব মাওলানা হাফেজ ছালামতুল্লাহ, ইসলামী ছাত্রসমাজের সাবেক কেন্দ্রীয় সভাপতি, পার্টির যুগ্মমহাসচিব অধ্যক্ষ মনজুরুল কাদের চৌধুরী, ইসলামী ছাত্রসমাজের সাবেক কেন্দ্রীয় সভাপতি ও নেজামে ইসলাম পার্টির সহকারী মহাসচিব মাওলানা আজীজুল হক ইসলামাবাদী, সহকারী মহাসচিব ডা. মাওলানা ইলিয়াস খান, ইসলামী ছাত্রসমাজের সাবেক সংগঠন সচিব মাওলানা মুহাম্মদ ইয়াছিন হাবিব, মাওলানা বুরহান উদ্দিন আল-রাজী, ইসলামী ছাত্রসমাজের সাবেক কেন্দ্রীয় সভাপতি, পার্টির যুব বিষয়ক সচিব অধ্যাপক নজরুল ইসলাম চৌধুরী, ইসলামী ছাত্রসমাজের সাবেক অর্থ সচিব মাওলানা মুসাদ্দিকুল মওলা প্রমুখ।
উল্লেখ্য, মেধাবী ছাত্রনেতা হাফেজ মুহাম্মদ আবুল মঞ্জুর ২০১৮ সালের ১৯ অক্টোবর থেকে কেন্দ্রীয় সহ-সভাপতি হিসেবে দায়িত্ব পালন করে আসছিলেন। ২০১৩ সালের ১৯ এপ্রিল থেকে এ সংগঠনের কক্সবাজার জেলা সভাপতি হিসেবে দায়িত্ব পালন করে সাংগঠনিক দক্ষতা ও রাজনৈতিক প্রজ্ঞার স্বাক্ষর রাখেন।
তিনি আকাবিরে দেওবন্দের হাতে গড়া ঐতিহ্যবাহী এ ছাত্র সংগঠনে যোগদান করে পর্যায়ক্রমে রামু রাজারকুল ইউনিয়ন শাখার সাধারণ সম্পাদক, রামু উপজেলা সাধারণ সম্পাদক, কক্সবাজার জেলা যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক, সাধারণ সম্পাদক ও সভাপতি হিসেবে অত্যন্ত সুনাম, দক্ষতা ও সাহসিকতার সাথে দায়িত্ব পালন করেন। প্রত্যন্ত জনপদে ইসলামী ছাত্রসমাজের দাওয়াত পৌঁছানো এবং সংগঠনকে মজবুত ভিত্তির ওপর দাঁড় করানোর লক্ষ্যে হাফেজ আবুল মঞ্জুরের একনিষ্ঠ কর্মপ্রয়াস ও আত্মত্যাগ সারাদেশের নেতা কর্মীদেরকে দারুণভাবে উজ্জীবিত করে। তিনি সাংগঠনিক দক্ষতার নজীর স্থাপনের সাথে সাথে রাজপথে ঈমানী ও জাতীয় ইস্যুতে বিভিন্ন আন্দোলন সংগ্রামেও সাহসিকতা ও আত্মত্যাগের দৃষ্টান্ত স্থাপন করেন। আদর্শিক পথচলা অব্যাহত রাখতে গিয়ে তিনি কারাবরণ করেন, হামলা-মামলার শিকার হন। এভাবে বিভিন্ন প্রতিকুলতা মোকাবিলা করে ইউনিয়ন পর্যায় থেকে হাটি হাটি পা পা করে এগিয়ে আসা এ মেধাবী ছাত্রনেতা ইসলামী ছাত্রসমাজের মতো ঐতিহ্যবাহী ছাত্র সংগঠনের কেন্দ্রীয় নেতৃত্বে অভিষিক্ত হন।

  •  
  •  
  •  
  •  
  •   
  •  
  •