নিজস্ব প্রতিবেদক
আগামী ১৫ ফেব্রুয়ারী অনুষ্ঠিতব্য কক্সবাজার জেলা ক্রীড়া সংস্থার কার্যনির্বাহি পরিষদের নির্বাচনে যুগ্ম সম্পাদক পদে তীব্র প্রতিদ্বন্দ্বিতা গড়ে তুলেছেন জেলা ক্রীড়া সংস্থার কার্যনির্বাহী সদস্য জি.এম জাহিদ ইফতেকার। তার ভোটার নং-১২০।
তিনি কক্সবাজার সরকারী কলেজের সাবেক অধ্যক্ষ প্রফেসর জি.এম ছলিম উল্লাহর একমাত্র ছেলে। তার স্ত্রী ফাহমিদা বেগম ইসলামিক ফাউন্ডেশন কক্সবাজার অফিসের উপপরিচালক।
ইতোমধ্যে তিনি ভোটারদের দ্বারে দ্বারে গিয়ে ভোট প্রার্থনা শুরু করেছেন। দোয়া চাচ্ছেন সুধীজনের। অবাধ সুষ্ঠু ও নিরপেক্ষ ভোটে জয়ের ব্যাপারে শতভাগ আশাবাদি।
জি.এম জাহিদ ইফতেকার চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয় থেকে সাংবাদিকতা ও গণযোগাযোগ বিষয়ে কৃতিত্বের সঙ্গে এম.এস.এস পাশ করেন। পৈত্রিক নিবাস সদরের ভারুয়াখালী হলেও স্বপরিবারে বসবাস শহরের বাহারছড়ায়।
জি.এম জাহিদ ইফতেকার জিসান একজন দক্ষ ও চৌকস খেলোয়াড়। ২০১৪ সালে জেলা ক্রীড়া সংস্থায় ইনডোর খেলার প্রতিনিধি নিয়ে নানা জটিলতা দেখা দিলে তিনি সর্ব প্রথম এগিয়ে যান। নিজেই সাধারণ ভোটারদের পক্ষে ভূমিকা পালন করেন। ভোটাধিকার প্রতিষ্ঠায় দেশের সর্বোচ্চ আদালত পর্যন্ত যান।
ক্রীড়াঙ্গণের পাশাপাশি রাজনীতির মাঠেও সুদক্ষ সংগঠক জাহিদ ইফতেকার। তিনি কেন্দ্রীয় যুবলীগের প্রচার ও প্রকাশনা কমিটির সদস্য এবং জেলা যুবলীগের সাংগঠনিক সম্পাদক। দলের ভেতরে বাইরে একজন ভদ্র ছেলে হিসেবে তাকে সকলে চেনে।
নির্বাচনের প্রসঙ্গে জি.এম জাহিদ ইফতেকার জানান, তিনি সবসময় ক্রীড়াঙ্গণের উন্নয়ন ও ভোটাধিকার প্রতিষ্ঠায় বলিষ্ট ভূমিকা পালন করেছেন। আগামীতেও সেভাবে কাজ করে যাবেন। পাওয়ার জন্য নয়, দেওয়ার ব্রতি নিয়েই নির্বাচনের মাঠে নেমেছেন বলেও জানান জি.এম জাহিদ ইফতেকার।
কক্সবাজারের ক্রীড়াঙ্গণের উন্নয়নে ১৫ ফেব্রুয়ারী যুগ্ম সম্পাদক পদে তিনি সবার দোয়া ও ভোট প্রার্থনা করেছেন।

  •  
  •  
  •  
  •  
  •   
  •  
  •