মুহাম্মদ আবু সিদ্দিক ওসমানী :
কক্সবাজার পৌরসভার ৭ নাম্বার ওয়ার্ডের দক্ষিণ তারবনিয়ার ছরা বড় কবরস্থানের সার্বিক উন্নয়নে সরকারের পক্ষ হতে সম্ভব সবকিছু করা হবে। প্রাথমিক পর্যায়ে দক্ষিণ তারবনিয়ার ছরা বড় কবরস্থানের ভিতরে রাস্তা, ড্রেন ও লাইটিং এর কাজের জন্য ৯১ লক্ষ টাকা বরাদ্দ দেওয়া হয়েছে। যে কাজ এলজিইডি এখন বাস্তবায়ন করছে। একাজ সম্পন্ন হলে কবরস্থানে যাতায়াত, দাফন, জেয়ারত সহ সংশ্লিষ্ট সব কাজ স্বাচ্ছন্দ্যে ও সুচারুরূপে করা যাবে।

শুক্রবার ৭ ফেব্রুয়ারী আসরের নামাজের পর দক্ষিণ তারবনিয়ারছরা বড় কবরস্থানের উন্নয়ন কাজ পরিদর্শনকালে স্থানীয় সরকার বিভাগের সিনিয়র সচিব হেলালুদ্দীন আহমদ সমেবেত স্থানীয় লোকজনের উদ্দেশ্যে একথা বলেন। তিনি এসময় তাঁর মরহুম পিতা-মাতা, তিনি ও তাঁর পরিবারের জন্য সকলের কাছে দোয়া চান। স্থানীয় সমবেত জনতা হেলালুদ্দীন আহমদ সরকারের সিনিয়র সচিব পদে পদোন্নতি লাভ করায় তাঁকে অভিনন্দন জানান।

এসময় অন্যান্যের মধ্যে কক্সবাজার জেলা আইনজীবী সমিতির সাবেক সাধারণ সম্পাদক এডভোকেট জিয়া উদ্দিন আহমদ, এডভোকেট সিরাজ উদ্দিন, সাবেক চেয়ারম্যান জালাল আহমদ, দক্ষিণ তারাবনিয়ার ছরা জামে মসজিদের খতিব মাওলানা হাফেজ আহমদ, মো. আমির উদ্দিন, বিশিষ্ট ব্যবসায়ী ছানাউল্লাহ, ব্যাংকার সানা উল্লাহ জালাল চেয়ারম্যান( কুতুব দিয়া)ওমর পেশকার নুরুল হুদা পেশকার ব্যাংকার রিয়াজ উদ্দিন আহমদ, এলজিইডি’র প্রধান প্রকৌশলী সুশংকর আচার্য, তারাবনিয়ার ছরা মসজিদের খতিব মাওলানা অলি আহমদ, নুরুল হুদা পেশকার,শাহ আলম, মোহাম্মদ ওমর পেশকার প্রমুখ উপস্থিত ছিলেন।

প্রসঙ্গত, কক্সবাজার শহরের উত্তর তারানিয়ার ছরার বাসিন্দা স্থানীয় সরকার বিভাগের সিনিয়র সচিব হেলালুদ্দীন আহমদের মাতা ও পিতা উভয়ের কবর উক্ত দক্ষিণ তারাবনিয়ার ছরা বড় কবরস্থানে রয়েছে।