মুহাম্মদ আবু সিদ্দিক ওসমানী :

টেকনাফে সরকারি কলেজ মাঠে সোমবার ৩ জানুয়ারি আত্মসমর্পণকারী ২১ জনকে ২টি পৃথক মামলায় গ্রেপ্তার দেখিয়ে আদালতের মাধ্যমেে কারাগারে প্রেরণ করা হয়েছে। বিষয়টি টেকনাফ মডেল থানার ওসি (তদন্ত) ও মামলা ২ টি’র বাদী এ.বি.এম.এস দোহা সিবিএন-কে নিশ্চিত করেছেন।আত্মসমর্পণকারী ইয়াবা কারবারিদের কাছ থেকে ২১ হাজার পিস ইয়াবা, দেশীয় ১০টি এলজি, ৩০টি তাজা কার্তুজ উদ্ধার দেখিয়ে জব্দ তালিকা তৈরী করা হয়েছে।

আত্মসমর্পনকারীদের বিরুদ্ধে ১৮৭৮ সালের অস্ত্র নিয়ন্ত্রণ আইনে একটি ও মাদক দ্রব্য নিয়ন্ত্রণ আইনে অপর একটি মামলা একইদিন টেকনাফ মডেল থানায় মামলা দায়ের করা হয়। যার টেকনাফ থানা মামলা নম্বর : ০৬/২০২০ ইংরেজি এবং ০৭/২০২০ ইংরেজি। মামলা দায়েরের পর কক্সবাজার আদালতের কোর্ট ইনস্পেকটর প্রদীপ কুমার দাশ পিপিএম এর মাধ্যমে ২১ জন আসামীকে আদালতে প্রেরণ করা হয়। আদালতে মামলাটির জিআর নম্বর পড়ে ১১৬/২০২০ ইংরেজি এবং ১১৭/২০২০ ইংরেজি। কক্সবাজার চীফ জুডিসিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট আদালতের প্রশাসনিক কর্মকর্তা (ভা:) মোহাম্মদ আশেক ইলাহী শাহজাহান নূরী সিবিএন-কে জানান, টেকনাফের জিআর মামলার দায়িত্বরত বিচারক চীফ জুডিসিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট (ভা:) রাজীব কুমার বিশ্বাস এই মামলার ২১ জন আসামীকে চার্জ ওয়ারেন্ট (সিডাব্লিও) মূলে কারাগারে পাঠানোর নির্দেশ দেন। আদালতের নির্দেশ অনুযায়ী সোমবার ৩ ফেব্রুয়ারী সন্ধ্যায় ২১ জন আত্মসমর্পণকারী আসামীকে কক্সবাজার জেলা কারাগারে প্রেরণ করা হয় বলে সিবিএন-কে কোর্ট ইন্সপেক্টর প্রদীপ কুমার দাশ পিপিএম জানিয়েছেন।

মামলা ২ টি’র আসামীরা হলো : টেকনাফ উপজেলার হ্নীলা ইউনিয়নের ফুলের ডেইল গ্রামের ফকির আহমদের ছেলে নুর মোহাম্মদ, নুর কবিরের ছেলে ইমাম হোসেন, হোয়াইক্যং উত্তরপাড়ার মৃত আব্দুর শুক্কুরের ছেলে ফরিদ আলম, মহেশখালীয়াপাড়ার মৃত নুরুল ইসলামের ছেলে শাহাদাত হোছাইন, টেকনাফ সদর ইউনিয়নের মৌলভী পাড়ার বাসিন্দা হাজী ফজল আহমদের ছেলে মোহাম্মদ রিদওয়ান ও তার ভাই আব্দুর রাজ্জাক, সুলতান আহমদের ছেলে বশির আহমদ, মৃত আমির হোসেনের ছেলে ও সাবেক ছাত্রদল নেতা আব্দুল আমিন আবুল, মৃত লাল মিয়ার ছেলে আবুল কালাম, মৌলভীপাড়ার ছৈয়দ হোসেনের ছেলে মোহাম্মদ রাসেল ওরফে হাজি রাসেল, রুহল আমিনের ছেলে ফজল করিম, সাবরাং ইউনিয়নের লেজির পাড়ার মৃত হাজী মকতুল হোসেনের ছেলে মোহাম্মদ ইদ্রিস, টেকনাফ সদর ইউনিয়নের উত্তর লম্বরী পাড়ার জহির আহমদের ছেলে আবু তৈয়ূব ওরফে মধু, মাঠপাড়ার ফজলুর রহমানের ছেলে মোহাম্মদ জাহেদ, খয়রাতি পাড়ার আবুল কালাম সওদাগরের ছেলে মোহাম্মদ সাদ্দাম, টেকনাফ পৌরসভার পুরাতন পল্লান পাড়ার মৃত কামাল হোসেনের ছেলে আব্দুল নূর, লামার বাজারের আব্দুল জলিলের ছেলে মোহাম্মদ ইসমাঈল, সাবরাং ইউনিয়নের সিকদার পাড়ার মৃত ছৈয়দুর হোসেনের ছেলে আব্দুল গফুর, সাবরাং সিকদারপাড়া আমির হোসেনের ছেলে মোহাম্মদ হোসেন কালু, হ্নীলা ইউনিয়নের উলুচামোরি কোনারপাড়ার আবুল কালামের ছেলে মিজানুর রহমান।

  •  
  •  
  •  
  •  
  •   
  •  
  •