মোঃ ফারুক, পেকুয়াঃ

পেকুয়ায় বসতবাড়ি দখল করতে প্রতিবন্ধীসহ তিনজনকে কুপিয়ে আহত করেছে প্রতিপক্ষের লোকজন।

রবিবার সকালে শিলখালী ইউনিয়নের আলেকদিয়া পাড়া এলাকায় এ ঘটনা ঘটে।

আহতেরা হলেন -একই এলাকার নুরুল আলমের স্ত্রী হামিদা বেগম (৫২), তার প্রতিবন্ধী ছেলে রাশেদুল ইসলাম (২৩) ও মেয়ে কলেজ ছাত্রী রুমানা জন্নাত (১৮)। আহতদেরকে পেকুয়া স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করা হয়েছে। তার মধ্যে প্রতিবন্ধী রাশেদুল ইসলাম এর জখম গুরুতর হওয়ায় রেফার করা হয়েছে।

নুরুল আলমের মেয়ে মুন্নী আকতার বলেন, আমার পিতা নুরুল আলমের বসতবাড়ি দখল করার চক্রান্ত করে আসছিল একদল দূর্বৃত্ত। এরই ধারাবাহিকতায় ঘটনার দিন সকালে একই এলাকার মৃত হামিদুল্লার ছেলে মছন আলী ও মুহাম্মদ হাসান, মছন আলীর ছেলে ওসামা বিন লাদেন, মৃত আজিমুল্লার ছেলে মাহামুদুল করিম, রুকসানা বেগম ও কামরুনেচ্ছাসহ আরো কয়েকজন সংঘবদ্ধ সন্ত্রাসী দেশীয় অস্ত্রে সজ্জিত হয়ে বসতবাড়ি দখল করতে আসে। একপর্যায়ে আমার মা ও বোনেরা বাধা প্রদান করলে তাদেরকে কুপিয়ে আহত করে। এমনকি তারা আমার প্রতিবন্ধী ভাই রাশেদুল ইসলামকেও কুপিয়ে গুরুতর আহত করেছে। তার হাড় ভেঙে দেয়া হয়েছে। এছাড়াও সংঘবদ্ধ সন্ত্রাসীরা যাওয়ার সময় ৭০হাজার টাকা ও স্বর্ণালংকার নিয়ে যায়।

তিনি আরো বলেন, বেশ কিছুদিন ধরে তারা আমাদের পরিবারকে হুমকি দিয়ে আসছিল। এখনো হুমকি দিচ্ছে মামলা না করার জন্য। আমরা তাদের ভয়ে আতংকে দিনাপাত করছি। এবিষয়ে আমরা প্রশাসনের হস্তক্ষেপ কামনা করছি।

  •  
  •  
  •  
  •  
  •   
  •  
  •