শফিক আজাদ, উখিয়া:
উখিয়া দীর্ঘ ১৪ দিন ধরে নিখোঁজ রয়েছে মোস্তাফিজুর রহমান সাইমন(১৫) নামের এক মাদ্রাসা ছাত্র। সে রাজাপালং ইউনিয়নের পূর্বডিগলিয়াপালং ৪নং ওয়ার্ডের দুবাই প্রবাসি শাহ জালালের ছেলে। এ ঘটনায় নিখোঁজ সাইমনের মাতা বাদী হয়ে উখিয়া থানায় সাধারণ ডায়েরী লিপিবদ্ধ করেছে, যার নং-৩১৬।

দায়েরকৃত অভিযোগের সুত্রে জানা গেছে, বিগত কয়েক বছর ধরে সাইমন কক্সবাজার সদর উপজেলার খুরুসকুল ইউনিয়নের মাহাদ আল-নিবরাস মাদ্রাসা ও হেফজখানার শিক্ষার্থী হিসেবে হেফজ করে আসছিল। ডিসেম্বর মাসে বন্ধ সময় কাটাতে সে বাড়ীতে বেড়াতে আসে। বন্ধ শেষে যথারীতি গত ২৯/১২/২০১৯ ইং তারিখ মাদ্রাসায় যাওয়ার পথে বিকেল ৩টায় উখিয়া স্টেশনে সে হারিয়ে যায়। অনেক খোঁজাখুঁজি করেও তাকে পাওয়া যায়নি।

নিখোঁজ সাইমনের মাতা জাহানারা বেগম বলেন, গত ২০/১২/২০১৯ইং তারিখ রাতের দিকে ০১৮৮৮৫০৬১৩৯ নাম্বার থেকে একটি ফোন আসে। আমি সাইমনের মা কি না জিজ্ঞাসা করে। তখন পরিচয় দিলে সে ফোন কেটে দেয়। এরপর থেকে অদ্যাবধি ছেলের কোন খোঁজ পাওয়া যায়নি।

দীর্ঘদিন যাবৎ কোন সন্ধান না পাওয়ায় শোকে কাতর মাতা জাহানারা। তিনি কান্না জড়িত কণ্ঠে বলেন, রাত-দিন সে সন্তান ফিরে পাওয়ার অপেক্ষায় প্রহর গুণছেন। কেউ ছেলেটির সন্ধান পেলে ০১৮২৫-৩০৬৩৬৫, ০১৮৫০১৩৭২৯৪, ০১৮৫৭-৫৯৫০৯৪ নাম্বারে যোগাযোগ করার অনুরোধ জানিয়ে সে আরো বলেন, সন্ধান দাতাদের উপযুক্ত পুরষ্কৃত করা হবে।

এ ব্যাপারে উখিয়া থানার অফিসার ইনচার্জ মোঃ আবুল মনসুর বলেন, নিখোঁজ মাদ্রাসা ছাত্রের সন্ধানে বিভিন্ন স্থানে সোর্স সৃষ্টি করা হয়েছে। আসলে কি নিখোঁজ, নাকি আত্মগোপন করে আছে, এনিয়ে পুলিশ কাজ করছে বলে তিনি জানিয়েছেন।

  •  
  •  
  •  
  •  
  •   
  •  
  •