পেকুয়া সংবাদদাতাঃ

মাদককে রুখবো, বঙ্গবন্ধুর সোনার বাংলা গড়বো শীর্ষক প্রতিপাদ্য বিষয় নিয়ে মাদককে ‘না’ বলার শপথ নিয়েছে পেকুয়াবাসী। বৃহস্পতিবার দুপুরে মাদকদ্রব্য অধিদপ্তরের ৩০তম প্রতিষ্ঠা বার্ষিকী উপলক্ষে আয়োজিত এক সভায় এ শপথ গ্রহণ করে।

প্রতিষ্ঠা বার্ষিকী উপলক্ষে র‌্যালি ও আলোচনা সভা অনুষ্ঠিত হয়। আলোচনা সভায় সভাপতিত্ব করেন উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা সাঈকা সাহাদাত। প্রধান অতিথির বক্তব্য রাখেন, উপজেলা পরিষদ চেয়ারম্যান জাহাঙ্গীর আলম।

পেকুয়া বালিকা উচ্চ বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক আবুল হাশেমের পরিচালনায় আলোচনা সভায় আরো বক্তব্য রাখেন, জেলা আ’লীগে উপদেষ্টা কমিটির সদস্য সাবেক চেয়ারম্যান এডভোকেট কামাল হোসেন, উপজেলা আ’লীগের সম্মেলন প্রস্তুতি কমিটির আহ্বায়ক আবু হেনা মুস্তফা কামাল, উপজেলা পরিষদের ভাইস-চেয়ারম্যান আজিজুল হক, সাংবাদিক জহিরুল ইসলাম, বারবাকিয়া ইউপির চেয়ারম্যান মাওলানা বদিউল আলম, জাতীয় পার্টির সাবেক সভাপতি মাহাবুব ছিদ্দিকী, কমিউনিটি পুলিশিং পেকুয়া উপজেলা শাখার সাধারণ সম্পাদক তোফাজ্জল করিম, সাংবাদিক দিদারুল করিম, জিএমসি ও বালিকা উচ্চ বিদ্যালয়ের দুই শিক্ষার্থী।

এসময় উপজেলা চেয়ারম্যান জাহাঙ্গীর আলম বলেন, জাতীর জনক বঙ্গবন্ধুর সোনার বাংলা গড়ন করতে হলে মাদকের ছোবল থেকে আমাদেরকে বের হয়ে আসতে হবে। মাদক একটা দেশকে ধংস করার পাশাপাশি মাদক গ্রহণকারী পরিবারকেও ধংস করে দেয়। আপনারা জানেন মাননীয় প্রধানমন্ত্রী মাদক নিয়ন্ত্রণে জিরো টলারেন্স ঘোষণা করেছে। থানা ও উপজেলা প্রশাসনের একার পক্ষে মাদক নিয়ন্ত্রণ সম্ভব নয়। আমাদের সকলকে এগিয়ে আসতে হবে। আজকে শপথ হওক সুন্দর উপজেলা হিসাবে উন্নতি করতে মাদকের বিরুদ্ধে রুখে দাঁড়ায়। তাহলে পেকুয়াকে মডেল উপজেলা করার প্রয়াস অনেকাংশে এগিয়ে যাবে।

সভাপতি ইউএনও সাঈকা সাহাদাত বলেন, জাতীর জনক বঙ্গবন্ধু স্বপ্ন দেখেছিলেন সোনার বাংলা। আজকে সোনার বাংলা মাননীয় প্রধানমন্ত্রী গড়ে দিচ্ছেন। কিন্তু মাদকে আসক্ত হয়ে পড়লে সোনার বাংলা গড়ার অসমাপ্ত কাজ করতে বাধাগ্রস্ত হবে। আসুন আমরা সবাই শপথ গ্রহণ করি মাদক নিবনা। এ সময় ইউএনও উপজেলা চেয়ারম্যানসহ উপস্থিত শিক্ষার্থী ও এলাকাবাসী মাদক না নেওয়ার শপথ গ্রহণ করার পাশাপাশি প্রতিরোধ করার ঘোষণা দেন।

 

  •  
  •  
  •  
  •   
  •  
  •  
  •  
  •