সংবাদ বিজ্ঞপ্তিঃ

বিএনপি’র চেয়ারপার্সন বেগম খালেদা জিয়ার নিঃশর্ত মুক্তির দাবিতে বিক্ষোভ সমাবেশ করেছে কক্সবাজার জেলা শ্রমিক দল।
শনিবার (২১ ডিসেম্বর) বিকেলে জেলা বিএনপি’র কার্যালয়ে সমাবেশে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন বিএনপি’র কেন্দ্রীয় মৎস্যজীবী বিষয়ক সম্পাদক ও সাবেক এমপি রহমান কাজল।
তিনি বলেন, সাবেক প্রধানমন্ত্রী খালেদা জিয়াকে সম্পূর্ণ অন্যায়ভাবে কারারুদ্ধ করে রেখেছে সরকার। তিনি চরম অবিচার ও প্রতিহিংসার শিকার।
২৯ ডিসেম্বর পুলিশকে দিয়ে জনগণের ভোট লুট করিয়ে এখন প্রধানমন্ত্রী তাদের পদক দিচ্ছেন। জনগণ, গণতন্ত্র ও মানুষের ভোটাধিকারের সাথে প্রধানমন্ত্রীর এটা শ্রেষ্ঠ তামাশা। দেশ এখন আদিম অন্ধকারে নিমজ্জিত। চারদিকে ভীতি ও শঙ্কা আসন গেড়ে বসেছে। দেশকে নিরঙ্কুশভাবে হাতের কব্জায় নিতেই মহাভোট ডাকাতির নির্বাচন করা হয়েছে, আর সে জন্যই দেশের বিপুল জনপ্রিয় নেত্রী বেগম খালেদা জিয়াকে পরিকল্পিতভাবে মিথ্যা মামলায় আটক করে কারাগারে রাখা হয়েছে।
অবিলম্বে বেগম জিয়াসহ সব রাজবন্দীর নিঃশর্ত মুক্তি দিতে হবে বলে দাবি জানান লুৎফুর রহমান কাজল।
২০১৮ সালের ৮ ফেব্রুয়ারি এক মামলায় সাজাপ্রাপ্ত হয়ে প্রায় এক বছর ধরে কারাবন্দী রয়েছেন বেগম খালেদা জিয়া। পুরান ঢাকার নাজিম উদ্দিন রোডের সাবেক কেন্দ্রীয় কারাগারে নির্জনে বন্দী তিনি।
জেলা শ্রমিক দলের সভাপতি ও সাবেক পৌর প্যানেল মেয়র রফিকুল ইসলামের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠানে প্রধান বক্তা ছিলেন জেলা বিএনপির সভাপতি ও সাবেক হুইপ শাহজাহান চৌধুরী।
বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন জেলা বিএনপি’র সহ-সভাপতি ও কুতুবদিয়া উপজেলা পরিষদের সাবেক চেয়ারম্যান এটিএম নুরুল বশর চৌধুরী, কক্সবাজার জেলা ছাত্রদলের সভাপতি শাহাদাত হোসেন রিপন, সাধারণ সম্পাদক ফাহিমুর রহমান ফাহিম, জেলা ছাত্রদলের সাবেক সভাপতি ও জেলা বিএনপি’র ছাত্র বিষয়ক সম্পাদক রাশেদুল হক রাসেল।
জেলা শ্রমিক দলের সাধারণ সম্পাদক ও সাবেক পৌর কাউন্সিলর মোঃ কুতুব উদ্দিনের সঞ্চালনায় এতে উপস্থিত ছিলেন -জেলা শ্রমিক দলের সহ-সভাপতি রেজাউল করিম, শহর শ্রমিক দলের সভাপতি এস্তাক আহমদ, জেলা শ্রমিক দলের দপ্তর সম্পাদক ও পর্যটন অঞ্চল শ্রমিকদলের সভাপতি এম খাইরুল আমিন হিরু, জেলা ছাত্রদলের সাংগঠনিক সম্পাদক আনিছুর রহমান, শহর শ্রমিক দলের সাধারণ সম্পাদক আহমেদ হোসেন গুরা মিয়া, যুবদল নেতা দোলন ধর, চকরিয়া পৌরসভা শ্রমিকদলের সভাপতি রফিক আহমদ, সদর উপজেলা শ্রমিক দলের সভাপতি মোতাহার হোসেন, রামু উপজেলা শ্রমিকদলের সভাপতি জাহেদুল আলম, মহেশখালী উপজেলা শ্রমিক দলের সভাপতি নুরুল আবছার, আবাসিক শ্রমিকদলের সভাপতি মোহাম্মদ আলী, জেলা শ্রমিকদলের যুব বিষয়ক সম্পাদক রফিকুল ইসলাম রফিক, জেলা ঙশ্রমিক দলের সহসাধারণ সম্পাদক জয়নাল আবেদীন, জেলা ছাত্রদলের সাবেক সাংগঠনিক সম্পাদক সেলিম নেওয়াজ, জেলা হোটেল শ্রমিক দলের সাধারণ সম্পাদক আনোয়ার হোসেন, আবাসিক শ্রমিক দলের সাধারণ সম্পাদক হুমায়ুন কবির, চকরিয়া পৌরসভা শ্রমিকদলের সাধারণ সম্পাদক মঞ্জুর মোর্শেদ, মাতামুহুরী সাংগঠনিক উপজেলা শ্রমিক দলের সাধারণ সম্পাদক মাহফুজুর রহমান, প্রাদেশিক শ্রমিকদলের সাধারণ সম্পাদক আবুল কাশেম, প্রবাসী কক্সবাজার জেলা শ্রমিকদল নেতা নুরুল আবছার, শহর শ্রমিক দলের সহ-সভাপতি হালিম ভান্ডারী, সদর উপজেলা শ্রমিক দলের সহ-সভাপতি রমজান আলী, সাংগঠনিক সম্পাদক জামাল উদ্দিন, মাতামুহুরী সাংগঠনিক উপজেলা শ্রমিক দলের ভারপ্রাপ্ত সভাপতি জয়নাল আবেদীন, চকরিয়া উপজেলা শ্রমিক দলের যুগ্ম আহ্বায়ক সাহাব উদ্দিন লাল্টু, সদস্য সচিব মনজুর আলম, কক্সবাজার সরকারি কলেজ ছাত্রদলের আহবায়ক হামিদ খান, যুগ্ম আহ্বায়ক মুজিব, সদস্য সচিব সালমান বাপ্পি, সিটি কলেজ ছাত্রদলের সভাপতি ইমরান সিকদার, সাধারণ সম্পাদক আল-আমিন, কক্সবাজার শহর ছাত্রদলের যুগ্ম সম্পাদক সাঈদ আনোয়ার।

  •  
  •  
  •  
  •  
  •   
  •  
  •