মুহাম্মদ আবু সিদ্দিক ওসমানী :

রোহিঙ্গা প্রত্যাবাসন প্রক্রিয়ার অংশ হিসেবে রোহিঙ্গা নেতা, সাধারণ রোহিঙ্গাদের সঙ্গে মতবিনিময় ও বৈঠক করেছেন কক্সবাজার সফরে আসা মিয়ানমারের প্রতিনিধিদল। উখিয়া উপজেলার কুতুপালং ক্যাম্প-৪ (এক্সটেনশন) বুধবার ১৮ ডিসেম্বর বেলা ১ টা বিকেল সাড়ে ৪ টা পর্যন্ত রোহিঙ্গা শরনার্থীদের সাথে কথা বলে তাদের পালিয়ে আসার কারণ, মিয়ানমারে ফিরতে আগ্রহী কিনা সহ বিভিন্ন বিষয়ে জানতে চান। বৃহস্পতিবারও মিয়ানমারের প্রতিনিধিদল একই রোহিঙ্গা শরনার্থী ক্যাম্পে রোহিঙ্গাদের সাথে কথা বলবেন। বিষয়টি কক্সবাজার আরআরআরসি অফিসের অতিরিক্ত শরণার্থী ত্রাণ ও প্রত্যাবাসন কার্যালয়ের অতিরিক্ত শরণার্থী ত্রাণ ও প্রত্যাবাসন কমিশনার শামসুদ্দৌজা নয়ন সিবিএন-কে জানিয়েছেন।

এর আগে বুধবার ১৮ ডিসেম্বর সকাল ১১ টার দিকে প্রত্যাবাসন বিষয়ে কথা বলতে দুইদিনের সফরে কক্সবাজার পৌঁছেন মিয়ানমারের নয় সদস্যের একটি প্রতিনিধিদল।
সেখান থেকে দুপুর ১২টার দিকে উখিয়ার কুতুপালং ক্যাম্প-৪ এক্সটেনশনের উদ্দেশে রওয়ানা হন তারা। সেখানে রোহিঙ্গা নেতাদের সঙ্গে তারা কথা বলেন।

প্রতিনিধিদলের সদস্যরা কক্সবাজার বিমানবন্দরে পৌঁছালে সেখানে কক্সবাজার শরণার্থী ত্রাণ ও প্রত্যাবাসন কার্যালয়ের অতিরিক্ত শরণার্থী ত্রাণ ও প্রত্যাবাসন কমিশনার শামসুদ্দৌজা নয়ন ও কক্সবাজার জেলা প্রশাসনের অতিরিক্ত জেলা ম্যাজিস্ট্রেট মোহা. শাজাহান আলী তাঁদের অর্ভ্যথনা জানান।

কক্সবাজার অতিরিক্ত শরণার্থী ত্রাণ ও প্রত্যাবাসন কমিশনার মো. শামসু দৌজা নয়ন সিবিএন-কে জানান, দেশটির আন্তর্জার্তিক সংস্থা ও অর্থনৈতিক বিভাগের ডিরেক্টর জেনারেল চ্যান অ্যায়ের নেতৃত্বে ৯ সদস্যর এ প্রতিনিধিদলটি বুধবার দুপুরে কক্সবাজারের উখিয়ার কুতুপালং ক্যাম্প-৪ এক্সটেনশনে রোহিঙ্গা নেতাদের সঙ্গে বৈঠক করেছেন। সেখানে রোহিঙ্গাদের প্রত্যাবাসনের বিষয়ে আলাপ-আলোচনা হয়। এসময় তাঁদের সাথে শরনার্থী ত্রাণ ও প্রত্যাবাসন কমিশনার মোঃ মাহবুব আলম তালুকদার, অতিরিক্ত শরনার্থী ত্রাণ ও প্রত্যাবাসন কমিশনার মিজানুর রহমান, মোজাম্মেল হক, মো. শামসু দৌজা নয়ন, ক্যাম্প ইনচার্জ, উখিয়ার ইউএনও প্রকৌশলী মোঃ নিকারুজ্জামান চৌধুরী রবিন প্রমুখ উপস্থিত ছিলেন।

একইভাবে মিয়ানমারের প্রতিনিধিদলটির
বৃহস্পতিবার ১৯ ডিসেম্বর হিন্দু রোহিঙ্গাদের সঙ্গেও বৈঠকের কথা রয়েছে। পরে বৃহস্পতিবার ১৯ ডিসেম্বর বিকেলে বিমানযোগে ঢাকার উদ্দেশে তাদের কক্সবাজার ত্যাগ করার কথা রয়েছে।

  •  
  •  
  •  
  •  
  •   
  •  
  •