মোঃ নিজাম উদ্দিন, চকরিয়া:
চকরিয়া উপজেলার ডুলাহাজারা থেকে ইয়াবাসহ এক ব্যক্তিকে আটক দেখিয়ে পুলিশে দিয়েছে স্থানীয় কতিপয় লোকজন। আটক রিক্সা চালক মঞ্জুর আলম মনু (৪৫) ইউনিয়নের সোয়াজানিয়া এলাকার মৃত মফিজুর রহমানের পুত্র।
বৃহস্পতিবার সকাল ১১টার দিকে ক্রাইম জোন খ্যাত ডুলাহাজারা ইউনিয়নের ডুমখালী রিজার্ভ পাড়া নামক এলাকায় এ ঘটনা ঘটে।
ওই এলাকার যুবক আবু ছালেক নামের একজন জানান, রিজার্ভ পাড়া এলাকা থেকে রিক্সা চালক মনুকে দুইটি ইয়াবা টেবলেটসহ আটক করা হয়েছে। বিষয়টি এলাকার মেম্বারকে অবগত করা হলে তিনি থানা পুলিশে খবর দেন। পরে পুলিশ ইউনিয়ন পরিষদ থেকে রিক্সা চালক মনুকে আটক করে থানায় নিয়ে যায়।
সংশ্লিষ্ট অপর একটি সুত্রে জানা গেছে, দুর্ধর্ষ ক্রাইম এলাকা ডুমখালী রিজার্ভ পাড়ার একটি সংঘবদ্ধ চক্র রিক্সা চালক মনুর পকেটে পাঁচ হাজার টাকা থাকার কথা জানতে পারে। টাকাগুলো ছিনিয়ে নিতে পতিমধ্যে উৎপেতে থাকে ওই চক্রটি। সুযোগ বুঝে একপর্যায়ে তাকে শারীরিক নির্যাতন চালিয়ে টাকাগুলো ছিনিয়ে নেয়। ছিনতাইয়ের এ ঘটনা ভিন্ন খাতে প্রবাহিত করতে ও তাকে সেবনকারী সাজাতে একজনের পকেট থেকে ২টি ইয়াবা টেবলেট মনু’র পকেটে ঢুকিয়ে দেয়। এসময় ঘটনাটি স্বীকার করে নিতে তাকে অমানুষিক মারধর করে এবং বিভিন্নভাবে ভয়ভীতির মাধ্যমে হুমকি প্রদর্শন করে। পরে ২টি ইয়াবা টেবলেটসহ তাকে আটক দেখিয়ে মেম্বার ও পুলিশে খবর দেওয়া হয়েছে।
এ ব্যাপারে ডুলাহাজারা ২নং ওয়ার্ডের মেম্বার শাহাব উদ্দিন বলেন, এলাকার লোকজনের মাধ্যমে জানতে পারি ২টি ইয়াবা টেবলেট নিয়ে এক ব্যক্তিকে আটক করা হয়েছে। তখন আটক লোকটিকে ইউনিয়ন পরিষদে নিয়ে আসতে তাদের নির্দেশ দিই। পরে বিষয়টি থানায় অবগত করা হলে পুলিশ এসে তাকে আটক করে নিয়ে যায়।
এ ব্যাপারে চকরিয়া থানার উপপরিদর্শক (এসআই) মুফিজুর রহমান জানান, ডুলাহাজারা থেকে ২টি ইয়াবা টেবলেট নিয়ে এক ব্যক্তিকে আটক করা হয়েছে। স্থানীয় মেম্বারের দেওয়া খবর পেয়ে পুলিশ তাকে আটক করে। তবে মাদকমুক্ত সমাজ উপহার দিতে ইয়াবা সেবনকারী ও ব্যবসায়ীদের আটক করতে পুলিশ সর্বাত্মক চেষ্টা চালিয়ে যাচ্ছে।

  •  
  •  
  •  
  •  
  •   
  •  
  •