বিশেষ প্রতিবেদক:

মহেশখালী উপজেলার কালারমারছড়া ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক জহিরুল আলম বদন আজ সকাল আনুমানিক ১১:৩০ টায় হৃদরোগে আক্রান্ত হয়ে মৃত্যুবরণ করেন।

তার মৃত্যু নিয়ে বিভিন্ন পত্রিকা ও অনলাইন পোর্টালসহ ফেইসবুকে ভিন্ন ধরণের নিউজ প্রকাশ হওয়া ঘটনা সত্য নয় বলে জানিয়েছেন তার পরিবারের সদস্যরা।

তার মেঝ ছেলে আলাউদ্দিন জানান, কালারমারছড়া ইউনিয়ন আওয়ামী লীগ এর ওয়ার্ড কমিটি নিয়ে ৩ নং ওয়ার্ড আওয়ামী লীগের সভাপতি নুরুল ইসলাম ও কালারমারছড়া ইউনিয়ন আওয়ামীলীগ এর সদস্য বদিউল আলমের মধ্যে বাকবিতণ্ডা হয়। এক পর্যায়ে উভয়ের মধ্যে হাতাহাতি হলে উক্ত স্থানে জহিরুল ইসলাম বদন উভয়ের মধ্যে ঝগড়া বন্ধ করার জন্যে এগিয়ে আসেন। এক পর্যায়ে উক্ত স্থানে রাজনৈতিক টেনশনের তিনি হৃদরোগে আক্রান্ত হয়ে মারা যান বলে জানান। এছাড়া তিনি এর আগেও কয়েকবার স্ট্রোক করেছিলেন যা তার বড় ছেলে সালাউদ্দিন জানান।

তিনি একাধারে প্রায় ১৬ বছর যাবত কালারমারছড়া ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের বিগত কমিটিসহ বর্তমান কমিটির সাধারন সম্পাদক হিসেবে দায়িত্ব পালন করে আসছেন । আওয়ামী লীগ এর দুঃসময়ের নিবেদিত কর্মী ও সৎ ব্যক্তি হিসেবে কালারমারছড়া ইউনিয়ন আওয়ামীলীগকে সুশৃঙ্খলভাবে পরিচালনার ক্ষেত্রে তার আপ্রাণ প্রচেষ্টাসহ বিভিন্ন ভূমিকা বেশ প্রশংসিত। যা আগামী ১০০ বছরেও এরকম একজন সৎ নেতা খুঁজে পাওয়া দুর্লভ হবে জানান বিভিন্ন রাজনৈতিক নেতাসহ সাধারণ মানুষরা।

আগামী রবিবার ১৭ নভেম্বর সকাল ১০ টায় মহেশখালী উপজেলার কালারমারছড়া ইউনিয়নের ইউনুছ খালী নাছির উচ্চ বিদ্যালয় প্রাঙ্গণে ওনার জানাযার নামায অনুষ্ঠিত হবে

এছাড়া মরহুমের পরিবারের সদস্যরা এ মৃত্যুকে সাধারণ মৃত্যু হিসেবে উল্লেখ করেন এমনকি বিভিন্ন সংবাদ মাধ্যমসহ ফেইসবুকে “ধাক্কাধাক্কিতে নিহত” শিরোনামে প্রকাশিত বিভিন্ন সংবাদে সবাইকে বিভ্রান্তিতে না পড়ার অনুরোধ জানান ।

  •  
  •  
  •  
  •  
  •   
  •  
  •