পর্যটকদের আনতে ৪ জাহাজ সেন্টমার্টিনের উদ্দেশ্য টেকনাফ ছেড়েছে

প্রতীকী ছবি

মুহাম্মদ আবু সিদ্দিক ওসমানী :

সেন্টমার্টিনে আটকাপড়া পর্যটকদের টেকনাফে ফিরিয়ে আনতে সোমবার ১১ নভেম্বর সকাল সোয়া ১০ টায় কক্সবাজার জেলা প্রশাসনের অনুমোদন প্রাপ্ত ৪ টি জাহাজ টেকনাফ জেটি থেকে সেন্টমার্টিনের উদ্দেশ্যে রওয়ানা হয়েছে। বিষয়টি টেকনাফের নবাগত ইউএনও মোঃ সাইফুল ইসলাম সিবিএন-কে নিশ্চিত করেছেন।

টেকনাফের ইউএনও জানান, সেন্টমার্টিন থেকে ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান ও অন্যান্যদের হিসাব মতে, সেখানে আটকাপড়া পর্যটকের সংখ্যা ১ হাজারের বেশী হবেনা। তাই ৫ টি জাহাজ সেন্টমার্টিনের যাওয়ার জন্য প্রস্তুত রাখা হলেও ৪ টি জাহাজকে পর্যটকদের আনতে পাঠানো হয়েছে। জাহাজ গুলোতে যেকোন ঝুঁকি মোকাবেলায় পর্যাপ্ত রেসকিউ সামগ্রীর ব্যবস্থা রয়েছে। এছাড়া সেন্টমার্টিন সমুদ্র এলাকায় রুটিন দায়িত্ব পালনরত নৌবাহিনী ও কোষ্টগার্ডের সদস্যরাও অতিরিক্ত নিরাপত্তা হিসাবে পর্যটকবাহী জাহাজ গুলোকে অনুসরণ করবে। ইউএনও মোঃ সাইফুল ইসলাম সিবিএন-কে আরো জানান, সেন্টমার্টিনের উদ্দেশ্যে রওয়ানা দেওয়া জাহাজ ৪ টি সোমবার ১১ নভেম্বর দুপুর সাড়ে ১২ টার মধ্যে সেন্টমার্টিন পৌঁছার সম্ভাবনা রয়েছে। সেন্টমার্টিন দ্বীপে জাহাজে উঠানামার শুধুমাত্র ১ টি জেটি থাকায় সেন্টমার্টিন থেকে পর্যটক নিয়ে আধা ঘন্টা পর পর জাহাজ গুলো টেকনাফের উদ্দেশ্যে রওয়ানা করবে। সোমবার বিকেল সাড়ে ৪ টার মধ্যে ৪ টি জাহাজই টেকনাফ জেটি ঘাটে পৌঁছে যাবে বলে ইউএনও মোঃ সাইফুল ইসলাম সিবিএন-এর কাছে আশাবাদ ব্যক্ত করেছেন। তিনি আরো জানান, টেকনাফ জেটি ঘাটে কক্সবাজার মুখী বাস প্রস্তুত রাখা হচ্ছে পর্যটকদের নিয়ে আসার জন্য।

কক্সবাজার জেলা প্রশাসনের পর্যটন শাখার দায়িত্বরত, অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক (রাজস্ব উপসচিব) মোহাম্মদ আশরাফুল আফসার সিবিএন-কে জানান, সেন্টমার্টিন থেকে ফেরত আনা পর্যটকেরা যারা ঢাকা সহ দেশের বিভিন্ন স্থানে যেতে চাইবে প্রয়োজনে তাদের যাতায়াতের জন্য পরিবহন এজেন্টদের সাথে কথা বলে অতিরিক্ত বাসের ব্যবস্থা করা হবে। আর যারা কক্সবাজারে থাকতে চাইবে অনায়াসে তারা কক্সবাজারে থাকতে পারবেন বলে তিনি জানান। সেন্টমার্টন- টেকনাফ রুটে পর্যটকবাহী ৪ টি জাহাজের নিরাপত্তার জন্য সব ধরনের ব্যবস্থা করা হয়েছে উল্লেখ করে অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক মোহাম্মদ আশরাফুল আফসার সমুদ্র পথে জাহাজ টেকনাফ আসতে ইনশাল্লাহ কোন ঝুঁকি থাকবেনা বলে তিনি সিবিএন-কে জানান।

প্রসংগত, গত বৃহস্পতিবার বিকেল হতে দূর্যোগপূর্ণ আবহাওয়ার সিগন্যাল দেওয়ায় কক্সবাজার জেলা প্রশাসন সেন্টমার্টিন-টেকনাফ সমুদ্র পথে পর্যটকবাহী জাহাজ চলাচল বন্ধ করে দেয়। ফলে শুক্রবার ফেরার জন্য সেন্টমার্টিন দ্বীপে থাকা প্রায় এক হাজার পর্যটক গত ৪ দিন ধরে সেখানে আটকা পড়ে থাকে।

সর্বশেষ সংবাদ

উখিয়ায় পিইসি পরীক্ষা কেন্দ্রে সচিব ও হল সুপারের দায়িত্ব বন্টনে অনিয়মের অভিযোগ

এড. জিল্লুল করিম আর নেই, শনিবার জোহরের পর কুতুবদিয়ায় জানাজা

জেলা ছাত্রলীগের আন্তঃ উপজেলা ফুটবলের বর্ণাঢ্য উদ্বোধন : সদর ছাত্রলীগের কাছে বড় হার কুতুবদিয়ার

পানেরছড়ায় শিক্ষক পরিবারের উপর মধ্যযুগীয় বর্বরতা

আর্জেন্টিনা-ব্রাজিল মহারণ শুক্রবার রাতে

উপজেলা আওয়ামী লীগের নেতৃত্বে থাকছেন না এমপিরা

রোকেন ফোর মার্ডারের বিচারের অপেক্ষায় , আপাতত বিয়ে করছেননা

কালারমারছড়ায় চেয়ারম্যান তারেকের উন্নয়নযজ্ঞ চলছে

চবি ভিসি শিরীন আখতারের টুঙ্গিপাড়ায় বঙ্গবন্ধুর মাজারে শ্রদ্ধা নিবেদন

ভারতীয় সুপ্রিম কোর্টের রায় মুসলিম বিশ্ব ঘৃণাভরে প্রত্যাখ্যান করেছে : আল্লামা জুনাইদ বাবুনগরী

জালালাবাদ ইউনিয়ন আ’লীগের সভাপতি প্রার্থী হিসেবে লড়বেন যুবনেতা শাহিদ

বিমানে চড়ে বিদেশ থেকে রোববার হতে পেঁয়াজ আসবে

মানববন্ধনে ফোর মার্ডার তদন্তে আরো গতি আনার আহবান

আমি বলছিনা আমাকে ভালবাসতে হবে

রাঙামাটিতে ৪ দিনব্যাপী আয়কর মেলা শুরু

চকরিয়া থানা পুলিশের অভিযানে পলাতক আসামী গ্রেফতার

ডায়াবেটিস আক্রান্ত ধূমপায়ীর হৃদরোগের ঝুঁকি ২৫ গুণ বেশি!

পেঁয়াজের কেজি ২৫০ টাকা

জেনে নিন, বঙ্গবন্ধু বিপিএলে দেশি তারকাদের সর্বোচ্চ মূল্য কত?

চট্টগ্রামে মিনিবাস উল্টে নারী পুরুষ সহ আহত ৬