স্পোর্টস ডেস্ক:

সাকিব আল হাসানজুয়াড়ির সঙ্গে যোগাযোগের বিষয় ‘গোপন’ করায় দুই বছর নিষিদ্ধ হওয়ার পর এমন কঠিন সময়ে পাশে থাকায় ভক্তদের ধন্যবাদ জানিয়েছেন সাকিব আল হাসান। একইসঙ্গে তাদের শান্ত থাকার ও ধৈর্য ধারণের আহ্বান জানিয়েছেন তিনি। শুক্রবার দিবাগত রাতে নিজের ভেরিফায়েড ফেসবুক পেজে দেওয়া এক পোস্টে তিনি এ আহ্বান জানান।
ফেসবুক পোস্টে এ তারকা ক্রিকেটার বলেন, প্রথমেই আমার সব ভক্ত ও শুভাকাঙ্ক্ষীদের বলতে চাই, আমার এবং আমার পরিবারের জন্য যে খুব কঠিন সময় যাচ্ছে, সেই সময়ে আপনাদের নিঃশর্ত সমর্থন ও ভালোবাসা আমাকে ছুয়ে গেছে। নিজেকে ধন্য মনে হয়েছে। দেশকে প্রতিনিধিত্ব করার অর্থ কী তা গত কয়েকদিনে আমি আগের চেয়ে অনেক বেশি উপলব্ধি করেছি। এই নোটে আমার সব সমর্থকদের যারা আমার ওপর আরোপিত নিষেধাজ্ঞায় ক্ষুব্ধ হতে পারেন তাদের শান্ত থাকার ও ধৈর্য ধারণের অনুরোধ জানাচ্ছি।

তিনি বলেন, আমি খুব পরিষ্কারভাবে বলতে চাই যে, আইসিসি-র দুর্নীতি বিরোধী ইউনিটের পুরো তদন্ত গোপনীয় ছিল। বাংলাদেশ ক্রিকেট বোর্ড (বিসিবি) শুধু নিষেধাজ্ঞার ঘোষণা আসার কিছুদিন আগে আমার কাছ থেকে বিষয়টি জানতে আসে। সেদিক থেকে বিসিবি আমার ব্যাপারে সবচেয়ে ইতিবাচক এবং তারা আমার পরিস্থিতি বুঝতে পেরেছে। এজন্য আমি তাদের কাছে কৃতজ্ঞ।

সাকিব আল হাসান বলেন, আমি এটা বুঝতে পারছি যে, কেন বহু লোকজন আমাকে সহায়তার প্রস্তাব দিচ্ছে। আমি সত্যিই এটিকে স্বাগত জানাই। যাই হোক, এখানে একটি প্রক্রিয়া রয়েছে এবং আমি আমার নিষেধাজ্ঞা মেনে নিয়েছি। কারণ আমি মনে করি, এটিই সঠিক পদক্ষেপ।

এই তারকা ক্রিকেটার বলেন, আমার পুরো মনোযোগ এখন ক্রিকেট মাঠে ফেরা এবং ২০২০ সালে আবার বাংলাদেশের হয়ে খেলার দিকে। ততক্ষণ আমাকে আপনাদের দোয়া ও হৃদয়ে রাখুন। ধন্যবাদ।

  •  
  •  
  •  
  •  
  •   
  •  
  •