মুহাম্মদ আবু সিদ্দিক ওসমানী :

পটিয়া উপজেলার বিভিন্ন ফার্মেসীতে ভ্রাম্যমান আদালতের অভিযান পরিচালনা করে ২ লক্ষ ৫ হাজার টাকা জরিমানা আদায় করা হয়েছে। পটিয়ার উপজেলা নির্বাহী অফিসার (ইউএনও) ও নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট হাবিবুল হাসান বৃহস্পতিবার ১০ অক্টোবর এই ভ্রাম্যমাণ আদালত পরিচালনা করেন।

ভ্রাম্যমান আদালত পরিচালনাকালে পটিয়া সদরের পোস্ট অফিস মোড়ে ৪ টি ফার্মেসীতে মেয়াদ উত্তীর্ণ ওষুধ, অনুমোদনহীন কোম্পানীর ওষুধ, ডাক্তারদের স্যাম্পল ওষুধ বিক্রি করা ও নিদিষ্ট তাপমাত্রায় ওষুধ সংরক্ষণ না করার অপরাধে সোহা ফার্মেসীকে ৫০ হাজার টাকা, বাংলাদেশ ফার্মেসীকে ২৫ হাজার টাকা, সেন্ট্রাল ফার্মেসীকে ২০ হাজার টাকা ও মোতালেব ফার্মেসীকে ১০ হাজার টাকা অর্থদন্ড প্রদান করা হয়। এসব ফার্মেসী সহ অন্যান্য সকল ফার্মেসীর মালিক-কর্মচারীকে আইন মেনে চলার জন্য আহবান জানিয়ে সতর্ক করে দেওয়া হয়।

পরিচালিত ভ্রাম্যমান আদালতের বিষয়ে পটিয়ার ইউএনও এবং নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট হাবিবুল হাসান সিবিএন-কে বলেন, মানুষের মৌলিক অধিকারের একটি হলো চিকিৎসা। আর সে চিকিৎসার প্রধান উপাদান হলো ওষুধ। তাই কোন ভেজাল, মেয়াদোত্তীর্ণ, অনুমোদনহীন, মানহীন ওষুধ কোন অবস্থাতেই বিক্রি করতে দেওয়া হবেনা। তিনি বলেন, মাননীয় প্রধানমন্ত্রী এদেশকে একটি উন্নত দেশে পরিণত করার যে লক্ষ্যমাত্রায় এগিয়ে, তা বাস্তবায়ন করতে আমরা বদ্ধপরিকর। এজন্য গণমানুষের স্বাস্থ্যের জন্য ক্ষতিকর কোন কিছু বেচাকেনা প্রশাসন কোন অবস্থাতেই মেনে নেবেনা। পটিয়া উপজেলা প্রশাসনের উদ্যোগে ভ্রাম্যমান আদালতের এই কার্যক্রম জনস্বার্থে নিয়মিত পরিচালনা করা হবে বলে সিবিএন-কে জানান-পটিয়ার স্বনামধন্য ইউএনও হাবিবুল হাসান।

প্রসঙ্গত, গত বুধবার ৯ অক্টোবর পটিয়া উপজেলার কচুয়াই ইউনিয়নের কমলমুন্সীর হাঠে যানযট নিরসনকল্পে যাত্রী ছাউনিতে অবৈধভাবে গড়ে তোলা দোকান, ফুটপাতের অবৈধ দোকান ও ভ্রাম্যমান দোকান ভ্রাম্যমান আদালতের অভিযান চালিয়ে উচ্ছেদ করা হয়।

  •  
  •  
  •  
  •  
  •   
  •  
  •