নাইক্ষ্যংছড়ি পর্যটন শিল্পের সম্ভাবনাময়ী এলাকা -অতিরিক্ত সচিব মোঃ আতিকুল হক

ইমাম খাইর, সিবিএন:
পার্বত্যজেলা বান্দরবানের নাইক্ষ্যংছড়ির পর্যটন শিল্পের সম্ভাব্যতা যাচাইয়ের জন্য সরেজমিন পরিদর্শন করেন সরকারের অতিরিক্ত সচিব মোঃ আতিকুল হক।
শনিবার (২১সেপ্টেম্বর) সকালে তিনি নাইক্ষ্যংছড়ি পৌঁছালে স্বাগত জানান উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান ও উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি অধ্যাপক মোহাম্মদ শফিউল্লাহ।
পরিদর্শন শেষে মোঃ আতিকুল হক ওখানকার প্রাকৃতিক সৌন্দর্য দেখে অভিভূত হন এবং পর্যটন শিল্পের অপার সম্ভাবনার কথা স্বীকার করেন।
অতিরিক্ত সচিব মোঃ আতিকুল হক গণমাধ্যমকর্মীদের জানান, সঠিক পরিকল্পান প্রণয়ন করা গেলে পাহাড়ি জনপদ নাইক্ষ্যংছড়িতে দৃষ্টিনন্দন পর্যটন শিল্প গড়ে তুলা সম্ভব। এ জন্য স্থানীয় পর্যায়ে আরো বেশি করে ফিসিবিলিটি স্টাডি দরকার আছে।
এখানে পর্যটন সংশ্লিষ্ট প্রকল্প গ্রহনের জন্য সরকারের সংশ্লিষ্ট মহলে জোর সুপারিশ করবেন বলেও জানান তিনি।
পরিদর্শনকালে বান্দরবান জেলা পরিষদ সদস্য ক্যানোয়াং চাক, নাইক্ষ্যংছড়ি সদর ইউপি চেয়ারম্যান তসলিম ইকবাল চৌধুরী, উপজেলা প্রকৌশলী তোফাজ্জল হোসেন ভুঁইয়াসহ সংশ্লিষ্টরা উপস্থিত ছিলেন।
সূত্রে জানা গেছে, বান্দরবান জেলার নাইক্ষ্যংছড়ি উপজেলায় পর্যটন কমপ্লেক্স নির্মাণে অর্থ বরাদ্দ চেয়ে গত ৩০ জুলাই বেসামরিক বিমান পরিবহন ও পর্যটন মন্ত্রণালয়ে লিখিত আবেদন করেন উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান অধ্যাপক মোহাম্মদ শফিউল্লাহ।
তার ওই আবেদনের প্রেক্ষিতে সরেজমিন সম্ভাব্যতা যাচাইয়ের জন্য পরিদর্শন করতে আসেন সরকারের অতিরিক্ত সচিব মোঃ আতিকুল হক।
উপজেলা চেয়ারম্যান অধ্যাপক মোহাম্মদ শফিউল্লাহ তার আবেদনে উল্লেখ করেছেন, বান্দরবান পার্বত্য জেলাটি সাতটি উপজেলার সমন্বয়ে গঠিত। সেখানে নাইক্ষ্যংছড়ি উপজেলার একটি পাহাড়ি, দুর্গম, অনুন্নত ও পশ্চাৎপদ এলাকা। উপজেলাটি উঁচু-নিচু পাহাড় দ্বারা পরিবেষ্টিত। ভৌগলিক অবস্থানের কারণে নাইক্ষ্যংছড়ি উপজেলা কক্সবাজার সমুদ্র উপকূলের অতি নিকটে অবস্থিত। সেখানে পাহাড়ি আঁকাবাঁকা রাস্তার পাশে সুউচ্চ পাহাড়সমূহ এক দৃষ্টিনন্দন দৃশ্যের সৃষ্টি করেছে। যা পরিদর্শন করার জন্য ভ্রমণপিপাসু পর্যটকদের প্রতিনিয়ত বেড়াতে আসেন।
অধ্যাপক শফিউল্লাহ আরো উল্লেখ করেছেন, মানসম্মত পর্যটন অবকাঠামোসহ প্রয়োজনীয় সুযোগ সুবিধার অভাবে পর্যটকগণ প্রায়শই হতাশ হয়ে ফিরে যান। তাছাড়া পর্যটন নগরী কক্সবাজার অতি নিকটে হওয়ায় কক্সবাজার বেড়াতে আসা পর্যটকদের পাহাড়ের সৌন্দর্য অবলোকন করার জন্য নাইক্ষ্যংছড়ি উপজেলায় ভ্রমণে আসেন। উপজেলার ক্ষুদ্র নৃগোষ্ঠীসহ পাহাড়ি-বাঙালির শান্তিপূর্ণ সহাবস্থান অত্যন্ত চমকপ্রদ, যা বেড়াতে আসা পর্যটকদের মুগ্ধ ও চরমভাবে আকৃষ্ট করে।
নাইক্ষ্যংছড়ি উপজেলায় পর্যটন কমপ্লেক্স নির্মাণের প্রয়োজনীয়তা বিশ্লেষণ করে অধ্যাপক মোহাম্মদ শফিউল্লাহ ওই আবেদনে জানান, উপজেলাটি মায়ানমারের সীমান্তবর্তী হওয়ায় কয়েক লক্ষ রোহিঙ্গা শরণার্থী প্রবেশ করে, যাদেরকে পরবর্তীতে পার্শ্ববর্তী উখিয়া উপজেলার বিভিন্ন ক্যাম্পে স্থানান্তর করা হয়।
পার্শ্ববর্তী উখিয়া ও টেকনাফ উপজেলায় রোহিঙ্গাদের অবস্থানের কারণে বহু দেশী-বিদেশী এনজিওকর্মী ও বিভিন্ন সংস্থায় কর্মরত ব্যক্তিরা ছুটির দিনে কিংবা সুযোগ পেলে বেড়াতে আসেন। এখানে একটি পর্যটন কমপ্লেক্স তথা পর্যটন কেন্দ্র গড়ে তোলা হলে স্থানীয় জনসাধারণের আর্থসামাজিক উন্নয়ন হবে এবং পর্যটন শিল্পের বিকাশ ঘটবে। যা জাতীয় রাজস্ব আয় বৃদ্ধিতে প্রভাব ফেলবে। সেই লক্ষ্যে পর্যটন কমপ্লেক্স স্থাপনের জন্য ৫০ একর বা তদুর্ধ্ব পরিমাণ জমি প্রদান করা সম্ভব বিধায় সরকারের উন্নয়ন পরিকল্পনা মোতাবেক পর্যটন শিল্প বিকাশে বিভিন্ন উন্নয়ন কর্মকাণ্ড ও ভৌত অবকাঠামো স্থাপন করার নিমিত্তে প্রয়োজনীয় অর্থ বরাদ্দ দরকার।

সবুজের সমারোহ নাইক্ষ্যংছড়ি

আবেদনের সঙ্গে ৬টি প্রস্তাবনা উল্লেখ করা হয়েছে।
১. নির্ধারিত জমির আশেপাশে সংযোগ সড়ক নির্মাণ
২. এক পাহাড় থেকে অন্য পাহাড়ে ভ্রমণের জন্য ক্যাবলকার স্থাপন
৩. ইতোমধ্যে স্থানীয়দের অর্থায়নে বাঁধ দিয়ে সৃষ্ট লেকে নৌকা ভ্রমণসহ বিভিন্ন পর্যটন সরঞ্জামের ব্যবস্থা 
৪. পাহাড়সমূহে ইকোট্যুরিজমের প্রয়োজনীয় সামগ্রীর সংযোজন
৫. পর্যটকদের জন্য আকর্ষণীয় ও উন্নতমানের রিসোর্ট তৈরি
৬. বিভিন্ন ক্ষুদ্র নৃ-গোষ্ঠীর সামাজিক ও সাংস্কৃতিক ঐতিহ্যের সাথে মিল রেখে প্রদর্শনীকেন্দ্র স্থাপন , যাতে বিদেশী পর্যটকরা আকৃষ্ট হয়।

সর্বশেষ সংবাদ

সাতকানিয়া উপজেলায় মোতালেব বেসরকারিভাবে চেয়ারম্যান নির্বাচিত

সিপিপি শ্রেষ্ঠ স্বেচ্ছাসেবক পুরষ্কার পেলেন মহেশখালী ভাইস চেয়ারম্যান মিনুয়ারা

পেকুয়ায় চালককে জবাই করে টমটম ছিনতাই

বিবর্তন’র প্রবারণা পূর্ণিমা সংখ্যা ২০১৯ এর মোড়ক উন্মোচন

চট্টগ্রামের কোতোয়ালিতে ৩০০ পিস ইয়াবাসহ গ্রেফতার ১

‘কেয়ার’ এর আয়োজনে পালিত হল আন্তর্জাতিক দূর্যোগ প্রশমন দিবস-২০১৯

ঘুমধুম ইউনিয়নে জাহাঙ্গীর বেসরকারিভাবে চেয়ারম্যান নির্বাচিত

ফেনীতে ৬৩ লাখ টাকার ভারতীয় ট্যাবলেট জব্দ

ডুলাহাজারায় অবৈধ সার বিক্রয়ের মহোৎসব

অসাম্প্রদায়িক চেতনায় অদম্য গতিতে কক্সবাজার এগিয়ে যাচ্ছে : ডিসি কামাল হোসেন

কক্সবাজার সদর থানা পুলিশের অভিযানে গ্রেফতার- ৬

আবরার স্মরণে কক্সবাজার সরকারি কলেজে শোক র‍্যালী ও মানববন্ধন

চকরিয়ায় আইন-শৃঙ্খলা কমিটির সভায় যানজট, ছিনতাই ও মাদকমুক্ত করার সিদ্ধান্ত

নাইক্ষ্যংছড়ির ঘুমধুমে ভোট কেন্দ্রে বিশৃঙ্খলা: নিহত ২ (আপডেট)

ফোর মার্ডার : পুলক বড়ুয়াকে আইও নিয়োগ

পেকুয়ায় সাজাপ্রাপ্ত আসামী গ্রেপ্তার

সোনাইছড়িতে এ্যানিং মার্মা বেসরকারিভাবে চেয়ারম্যান নির্বাচিত

নাইক্ষ্যংছড়ি সদরে আবছার বেসরকারিভাবে চেয়ারম্যান নির্বাচিত

রামু সাম্প্রদায়িক সম্প্রীতির উর্বর ভূমি : কল্প জাহাজ ভাসা উৎসবে এমপি কমল

প্রেমিকের সাথে বিয়ে না দেয়ায় আলীকদমে তরুণীর আত্মহত্যা