বান্দরবান সংবাদদাতা:
কক্সবাজারে কড়াকড়িতে সুবিধা করতে না পেরে পার্বত্য জেলা বান্দরবানে পাসপোর্ট করতে গিয়ে কথিত পিতাসহ ধরা পড়লো রোহিঙ্গা নারী।

বৃহস্পতিবার (১৯ সেপ্টেম্বর) দুপুরে বান্দরবান পাসপোর্ট অফিস থেকে তাদের আটক করা হয়।

আটক দুইজন হলো- কক্সবাজারের উখিয়া রোহিঙ্গা ক্যাম্পের নিবন্ধিত রোহিঙ্গা জোসনা আক্তার (১৬)ও তার বাবা পরিচয়দানকারী বান্দরবান শহরের ইসলামপুর এলাকার বাসিন্দা শহীদ আলম (৩২)।

বান্দরবান অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক শামীম হো‌সেন ও পাসপোর্ট অফিসের উপপরিচালক ফরিদ উদ্দিন আহমেদ বলেন, ‘জোসনা আক্তার উখিয়ার রোহিঙ্গা ক্যাম্পের নিবন্ধিত রোহিঙ্গা। সে বান্দরবানের লামা উপজেলার ইয়াংছা এলাকার ঠিকানা ব্যবহার করে বান্দরবান শহরের ইসলামপুর এলাকার বাসিন্দা শহীদ আলমকে বাবা পরিচয় দিয়ে পাসপোর্ট অফিসে আসে। পাসপোর্ট অফিসের কর্মকর্তাদের সন্দেহ হলে যাচাই-বাছাইয়ের পর জোসনার রোহিঙ্গা পরিচয়ের প্রমাণ মেলে। পরে তাদের পুলিশের কাছে সোপর্দ করা হয়।’

রোহিঙ্গা নারী জোসনা আক্তার বলেন, ‘তিনি বাংলাদেশি। চট্টগ্রামে থাকার সময় বিনামূ‌ল্যে ত্রাণ পাওয়ার আশায় রোহিঙ্গা হিসেবে নাম লেখান। বর্তমানে বিদেশ যেতে পাসপোর্ট করাতে বান্দরবানে এসেছেন।’

বান্দরবান সদর থানার পরিদর্শক (তদন্ত) এনামুল হক ভুইয়া ব‌লেন, ‘মে‌য়ে ও বাবার কথাবার্তায় স‌ন্দেহ হ‌চ্ছে। আস‌লেই রো‌হিঙ্গা কিনা তা তদন্ত করা হ‌চ্ছে।’

  •  
  •  
  •  
  •  
  •   
  •  
  •